ফেসবুকে যে পরিবর্তন আনল ফেসবুক কর্তৃপক্ষ

ফেসবুক ব্যবহার করছেন? ফেসবুকে নতুন করে বেশ কিছু পরিবর্তন এসেছে, যা আপনার জানা প্রয়োজন।  ফেসবুকের নিউজফিডে ব্যবহারকারীর সক্রিয়তা বাড়াতে বিশেষ করে মন্তব্য বাড়াতে উদ্যোগ নিয়েছে ফেসবুক।

নিউজফিড থেকে যাতে সহজে হালনাগাদ নিউজ পড়া যায় বা সহজে অন্যান্য অপশনে যাওয়া যায়, তাই নকশায় কিছু পরিবর্তন নিয়ে এসেছে ফেসবুক।  ফেসবুকে মন্তব্য করার ধরনের পরিবর্তন এসেছে।  গত বুধবার ফেসবুক এ পরিবর্তন আনার ঘোষণা দিয়েছে।

ফেসবুকের এক ব্লগ পোস্টে বলা হয়েছে, ‘ফেসবুকে আরও বেশি প্রাণবন্ত ও অভিব্যক্তিপূর্ণ কথোপকথন চালাতে মানুষকে সাহায্য করা হচ্ছে।  এ ক্ষেত্রে কমেন্ট বা মন্তব্য করার বিষয়টি গুরুত্বপূর্ণ।  কমেন্ট করার ধরনটি হালনাগাদ করা হয়েছে।  এতে কোন কমেন্টটি সরাসরি জবাব, তা দেখতে সুবিধা হবে। ’

এ ছাড়া ফেসবুকের নকশায় বড় পরিবর্তন আনা হয়েছে।  এতে দেখতে ও পড়তে সুবিধা হবে।  উন্নত কালার কনট্রাস্ট, বড় ধরনের লিংক প্রিভিউ দেখার সুযোগ, লাইক ও আইকন হালনাগাদ, কমেন্ট ও শেয়ার বাটন, পোস্টদাতা বা কমেন্টকারীর গোলাকার প্রোফাইল ছবির মতো বিষয়গুলো পরিবর্তন করা হয়েছে।

কোনো লিংকে ক্লিক করলে তা কোন সাইটে নিয়ে যাবে বা কোন পোস্টে মন্তব্য বা প্রতিক্রিয়া জানানো হচ্ছে, তা সহজে জানা যাবে।

ক্যামেরা ফিচারে পরিবর্তন আনার বিষয়টিও আলাদাভাবে ঘোষণা করেছে ফেসবুক।  গত মার্চ থেকে ক্যামেরায় নতুন ফিচার যোগ করতে শুরু করে ফেসবুক।  ফেসবুক ক্যামেরা থেকে সরাসরি লাইভে যাওয়া, দুই সেকেন্ডের লুপিং ভিডিও জিআইএফ তৈরি ও ফুল স্ক্রিন টেক্সট পোস্ট তৈরির সুবিধা যুক্ত হচ্ছে এতে।

মেসেঞ্জারকেও উন্নত করছে ফেসবুক।  এতে বুদ্ধিমান সহকারী ‘এম’ স্পটিফাই বিষয়ে পরামর্শ দিতে পারবে।

ভুয়া ভিডিওর মাধ্যমে লাইক ও শেয়ার সংগ্রহকারীদের পোস্টের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে ফেসবুক। ভুয়া ভিডিওর মাধ্যমে লাইক ও শেয়ার সংগ্রহকারীদের পোস্টের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে ফেসবুক।  যেসব নিউজফিডের লিংকে ভুয়া প্লেবাটন বা ভিডিওর মতো ছবির ওপর প্রিভিউ প্লেবাটনের ছবি থাকবে, সেগুলো একেবারে নিচে নামিয়ে দেবে ফেসবুক।

যাঁরা এ ধরনের ভুয়া ভিডিও দেখার কথা বলে কৌশলে লাইক শেয়ার করতে চান, তাঁদের ওই পোস্ট বেশি মানুষের কাছে যাবে না।  অবশ্য নীতিমালা ভঙ্গ না করলে ওই পোস্ট মুছবে না।  কেবল নিউজফিডে প্রাধান্য পাবে না।

ফেসবুক বর্তমানে নিউজ ফিডে ভিডিওকে বেশি গুরুত্ব দিচ্ছে।  তবে ফেসবুকে কোনো স্থির ছবি ভিডিওর ক্ষেত্রে ব্যবহার করলে তার র‍্যাংকিং কম দেখাবে ফেসবুক।

ফেসবুক ‘মোশন স্কোরিং’ ব্যবহার করে ভিডিওর ভেতরে নড়াচড়া শনাক্ত করে এবং যে ভিডিওগুলো স্থিরচিত্র দিয়ে তৈরি সেগুলো ধরা পড়ে।

তথ্যসূত্র: আইএএনএস