মেসিকে থামাতে এবার কসাইয়ের ভূমিকায় ব্রাজিল তারকা লুইস

মেসির ‘প্রিয়’ প্রতিপক্ষ অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ। বার্সেলোনায় নিজের বর্ণাঢ্য ক্যারিয়ারে শুধু সেভিয়া ছাড়া অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের বিপক্ষেই বেশি গোল করেছেন মেসি। সেভিয়ার জালে ২৯ বার বল পাঠিয়েছেন এলএম টেন। অন্যদিকে অ্যাটলেটিকোর বিপক্ষে মেসি করেন ২৭ গোল।শুধু লা লিগার পরিসংখ্যান সামনে আনলে সেখানেও দুর্দান্ত মেসিরই দেখা মিলবে। অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের বিপক্ষে ২২ ম্যাচে ইতোমধ্যেই ২২ গোল করে ফেলেছেন আর্জেন্টাইন সুপারস্টার।

অনেকবার মুখোমুখি হওয়ায় লিওনেল মেসির সক্ষমতা ভালো করেই জানেন আতলেতিকো মাদ্রিদের ফুল-ব্যাক ফিলিপে লুইস। জানেন বার্সেলোনার এই ফরোয়ার্ডকে থামানোর জন্য করণীয়টাও।

আগামী শনিবার লা লিগার ম্যাচে তাই ‘কসাইয়ের’ ভূমিকায় থাকবেন ব্রাজিলের এই ডিফেন্ডার।  আন্তর্জাতিক ফুটবলের কারণে বিরতি শেষে আবার মাঠে গড়াতে যাচ্ছে ইউরোপের লিগগুলো। শনিবার আতলেতিকো মাদ্রিদের মাঠে খেলতে যাবে ছন্দে থাকা বার্সেলোনা।

নতুন মৌসুমে দারুণ ফর্মে আছেন মেসি। লিগে বার্সেলোনার হয়ে এখন পর্যন্ত সাত ম্যাচে করেছেন ১১ গোল। সম্প্রতি জাতীয় দলের জার্সি গায়েও অবিশ্বাস্য খেলেছেন পাঁচবারের বর্ষসেরা এই ফুটবলার।

বিশ্বকাপের বাছাইপর্বের শেষ ম্যাচে মেসির হ্যাটট্রিকেই ৩-১ গোলের জয় পেয়ে সরাসরি রাশিয়া বিশ্বকাপ জায়গা করে নেয় আর্জেন্টিনা।

মেসিকে আটকাতে নির্দয় হয়ে খেলা ছাড়া আর কোনো উপায় দেখছেন না লুইস।

লুইস বলেন, আমি তার বিপক্ষে ৩০টির বেশি ম্যাচ খেলেছি। আমি কসাইয়ের ভূমিকায় খেলি। ফাউল না করে ওয়ান-অন-ওয়ান অবস্থানে তাকে আটকানো অসম্ভব। আমাকে তার জন্য বিষয়গুলো অস্বস্তিকর করতে হবে। সে স্বচ্ছন্দ বোধ করলে আপনি শেষ।”

এবারের লা লিগায় সাত ম্যাচের সবকটিতে জিতে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে আছে বার্সেলোনা। ৭ পয়েন্ট কম নিয়ে পঞ্চম স্থানে আছে তাদের চির প্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ। ১৫ পয়েন্ট নিয়ে চতুর্থ স্থানে আতলেতিকো।-গো নিউজ২৪