২ ডিসেম্বর পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী

বাংলাদেশের আকাশে রোববার পবিত্র রবিউল আউয়াল মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। সোমবার ৩০ দিনে পূর্ণ হবে চলতি সফর মাস। মঙ্গলবার থেকে গণনা শুরু হবে রবিউল আউয়াল।

এ হিসেবে আগামী ১২ রবিউল আউয়াল অর্থাৎ ২ ডিসেম্বর শনিবার পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী উদযাপিত হবে।রোববার বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদে জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির সভায় এসব সিদ্ধান্ত হয়।

সোমবার থেকে ১ হাজার ৪৪৮ বছর আগে রবিউল আউয়াল মাসে ১২ তারিখে জন্মগ্রহণ করেন শান্তির ধর্ম ইসলামের প্রচারক, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ মানব, সাইয়েদুল মুরসালিন হজরত মুহাম্মদ (সা.)। ঠিক এর ৬৩ বছর পর একই তারিখে তিনি ইন্তেকাল করেন রাসূল (সা.)।

বিশ্ব মুসলিম উম্মাহ দিনটি তাই একই সঙ্গে আনন্দ ও বেদনার দিন। দিনটি যথাযোগ্য মর্যাদায় ও ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে এ দিনটি ঈদে মিলাদুন্নবী বা সিরাতুন্নবী (সা.) নামে উদযাপিত হয়।

চাঁদ দেখা কমিটির সভায় সভাপতিত্ব করেন ধর্ম সচিব মোঃ আনিছুর রহমান। উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের যুগ্মসচিব মোহাম্মদ মেজবাহ্‌ উদ্দিন চৌধুরী, ধর্ম মন্ত্রণালয়ের যুগ্মসচিব মোঃ হাফিজুর রহমান, সরকারী মাদ্রাসা-ই-আলিয়ার অধ্যক্ষ সিরাজ উদ্দিন আহমদ, বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের সিনিয়র পেশ ইমাম মাওলানা মুহাম্মদ মিজানুর রহমান, লালবাগ শাহী মসজিদের খতিব মাওলানা আবু রায়হান ও চকবাজার শাহী জামে মসজিদের খতীব মাওলানা শেখ নাঈম রেজওয়ান প্রমুখ।