দেশে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস

শীতে কাঁপছে মানুষ। শৈত্যপ্রবাহে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। ২০১৩ সালের পর দেশে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা নেমেছে। আজ সোমবার নীলফামারী জেলার সৈয়দপুর ও ডিমলায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে।বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তরের সহকারী আবহাওয়াবীদ মিজানুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, ২০১৩ সালে দেশে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছিল। এর পর আর এই রকম শীত দেখা যায়নি। আরো দুই তিন আবহাওয়া অপরিবর্তিতে থাকতে পারে।গতকাল রোববার দিনাজপুর জেলায় সর্বনিম্ন ৫ দশমিক ১ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়।

আবহাওয়া অধিদপ্তর জানায়, উত্তরের রাজশাহী, পাবনা, দিনাজপুর ও কুষ্টিয়া অঞ্চলের উপর দিয়ে তীব্র শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। শ্রীমঙ্গল ও সীতাকুণ্ড অঞ্চলসহ ঢাকা, ময়মনসিংহ ও বরিশাল বিভাগের অবশিষ্টাংশের উপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারী ধরনের শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে।

গতকালের পূর্বাভাসে বলা হয়, মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত সারাদেশে মাঝারী থেকে ঘন কুয়াশা পড়তে পারে এবং তা কোথাও কোথাও দুপুর পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে।

আবহাওয়ার সিনপটিক অবস্থায় বলা হয়, দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগর এবং তৎসংলগ্ন দক্ষিণ আন্দামান সাগরে একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। উপ-মহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের উত্তরপশ্চিমাংশ পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে।-সূত্র: আরটিভি অনলাইন