বিমান বিধ্বস্ত ঘটনায় সফর সংক্ষিপ্ত করে কালই দেশে ফিরছেন প্রধানমন্ত্রী

বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় নেপালের প্রধানমন্ত্রী খর্গ প্রসাদ অলির সঙ্গে ফোনে কথা বলেছেন  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা । এ ঘটনায় সব ধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন তিনি।

এদিকে বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় সফর সংক্ষিপ্ত করে সিঙ্গাপুর থেকে আগামীকাল মঙ্গলবার দেশে ফিরছেন প্রধানমন্ত্রী।

এর আগে নেপালের ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের উড়োজাহাজ বিধ্বস্তে হতাহতের ঘটনায় শোক প্রকাশ করেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

আলাদা শোক বার্তায় সোমবার বিকেলে তারা নিহতদের আত্মার শান্তি কামনা করেন। পাশাপাশি আহতদের দ্রুত সুস্থতা কামনা করেন।

এর আগে নেপালে ইউএস বাংলার  BS-211 বিমান বিধ্বস্ত ঘটনায় তথ্য পেতে হটলাইন চালু করে নেপালের বাংলাদেশ দূতাবাস ।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ শাহরিয়ার আলম সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে এই তথ্য দেন। ফোন নাম্বার দুটি হলো +9779810100401, +9779861467422।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ শাহরিয়ার আলম জানান, দূতাবাসের কর্মকর্তারা হাসপাতাল ও বিমানবন্দরে আছেন।

বিধ্বস্ত ইউএস বাংলা এয়ার লাইন্সের ৭৮ আসনের বিমানটিতে যাত্রী ছিলেন ৬৭ জন। এরই মধ্যে ত্রিভুবন বিমানবন্দর বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। উদ্ধার কাজ চালাচ্ছে নেপালের সেনাবাহিনী ও ফায়ার সার্ভিস।

এদের মধ্যে ৩০ জনকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে বলে জানানো হয় নেপালের পর্যটন মন্ত্রণালয়ের যুগ্মসচিব সুরেশ আচার্য’র তরফ থেকে। তাদেরকে চিকিৎসার জন্য বিভিন্ন স্থানীয় হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এয়ারপোর্টের মুখপাত্র প্রেম নাথ ঠাকুর জানিয়েছেন, স্থানীয় সময় দুপুর ২:২০ মিনিটে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়।

বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ, দমকল বাহিনী এবং নেপাল সেনাবাহিনীর তরফ থেকে ঘটনাস্থলে উদ্ধার তৎপরতা চালানো হচ্ছে।-সময় নিউজ।