বাংলাদেশ ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ নিয়ে যা বললেন মুমিনুল

ঘরোয়া ক্রিকেটে তিন ফরমেটেই খেলেন মুমিনুল হক সৌরভ। সব ফরমেটেই তিনি দলের জন্য অপরিহার্য। কিন্তু জাতীয় দলের জন্য তিনি টেস্ট স্পেশালিস্ট। তাই ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে টেস্টের এ সেরা ব্যাটসম্যানের তেমন সুযোগ নেই। যে কারণে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তাকে অপেক্ষায় থাকতে হয় কেবল টেস্ট সিরিজের জন্য। জুনেই ভারতের মাটিতে আফগানিস্তানের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ থাকলেও সেখানে তার জায়গা পাওয়া কঠিন সেটি খুব ভালোই জানেন তিনি।

তবে সেই মাসেই বাংলাদেশ উড়বে ওয়েস্ট ইন্ডিজের উদ্দেশ্যে একটি দ্বিপাক্ষিক পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে।

ক্রিকেট লড়াইয়ে অংশ নিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ যাবেন মুমিনুল। সেখানে থাকবে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজও। তাই বিসিএলের শেষ দুই রাউন্ডে নিজেকে প্রস্তুত করতে মরিয়া এ ব্যাটসম্যান। প্রথম তিন ম্যাচ খেললেও তার খেলা হয়নি চতুর্থ রাউন্ডে। এখন বাকি শেষ দুটি রাউন্ড। এখানেই মুমিনুল প্রস্তুতি সেরে নিতে চাইছেন। ইসলামী ব্যাংকের হয়ে মাঠে কাল মাঠে নামার আগে সংবাদ মাধ্যমের সঙ্গে নিজের সেই লক্ষ্যের কথাই তুলে ধরেন মুমিনুল হক। তিনি বলেন, ‘ওয়েস্ট ইন্ডিজে যাওয়ার আগে এটাই হয়তো শেষ চারদিনের ম্যাচ। এরপর খেললেও খেলতে পারি, জানি না। ওই মানসিকতা নিয়েই খেলার চেষ্টা করবো, যেভাবে টেস্ট খেলি।’

এনসিএল শেষ হয়েছে, বিসিএলও শেষের পথে। হাতে বাকি মাত্র দুটি ম্যাচ। এতে কতটা প্রস্তুতি নেয়া সম্ভব এ নিয়ে মুমিনুল বলেন, ‘একজন ব্যাটসম্যান হিসেবে তো সব সময় ইচ্ছে থাকে কোনো আসরে বড় বড় স্কোর করার। অনেক বেশি রান করার ইচ্ছে আমারও আছে। সেই চেষ্টাও করবো। তবে সবচেয়ে বড় ব্যাপার হলো, দল হিসেবে আমাদের চ্যাম্পিয়ন হওয়ার খুব ভালো সম্ভাবনা আছে। দেখা যাক কী হয়।’ তিন ম্যাচে মুমিনুল ৭৬.৪০ গড়ে করেছেন ৩৮৭ রান।

২টি সেঞ্চুরিও হাঁকিয়েছেন তিনি। ব্যাট হাতে এখন আছেন তালিকার তৃতীয় স্থানে। মূলত শেষ দুই ম্যাচে ব্যাট হাতে আরো বড় স্কোরই তার এখন অন্যতম লক্ষ্য। তবে সেই চাপ মাথায় নিয়ে তিনি মাঠে নামতে চান না। এখন তার চিন্তা নিজের সঙ্গে দল নিয়েও। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘আপনি যখনই সর্বোচ্চ রান করার চেষ্টা করবেন, চিন্তা করবেন, তার মানে হলো আপনি নিজের জন্য চিন্তা করছেন। এভাবে আগে চিন্তা করতাম, সেটা ভুল ছিল, এখন বুঝি। সুতরাং আমি ওভাবে চিন্তা করে খেলবো না। দলকে চ্যাম্পিয়ন করানোর চেষ্টা করবো। একটা দল যখন চ্যাম্পিয়ন হবে, তখন দেখবেন যে তালিকায় তাদের ব্যাটসম্যানরাই উপরে থাকবে।’

অন্যদিকে দেশের মাটিতে প্রস্তুতি নিলেও ওয়েস্ট ইন্ডিজে খেলা ভীষণ কঠিন। সেখানকার কন্ডিশনে এ প্রস্তুতি কতটা কাজে দিবে এ নিয়ে মুমিনুল বলেন, ‘আপাতত বিসিএল নিয়েই ভাবছি। বিসিএল শেষ হলে হয়তো ওইটা নিয়ে চিন্তা করবো। আর কন্ডিশনের ব্যাপারটা হলো, আপনি যদি কঠিন মনে করেন, তাহলে কঠিন। এছাড়াও ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টিতে ফেরা নিয়ে তিনি বলেন, ‘এ বিষয়ে অনেক কথা হয়েছে। এখন ওয়ানডেতে আমার খেলতেই হবে সেভাবে চিন্তা করি না। টেস্টে যদি খুব ভালো ও ব্যতিক্রমী পারফর্ম করি, তাহলে এমনিতেই ওয়ানডেতে সুযোগ পাবো।