কত বেতন বাড়বে মাশরাফি-সাকিবদের?

ক্রিকেটারদের বেতন বাড়ানোর চিন্তাভাবনা শুরু করেছে বিসিবি। আগামীকালের বোর্ড সভাতেও তা চূড়ান্ত হয়ে যেতে পারে। গত এপ্রিলে যে বেতন তাদের বেড়েছিল তা-ও ক্রিকেটারদের দাবির প্রেক্ষিতেই। এবারো যে তেমন চাপ নেই তা নয়। যদিও প্রকাশ পায়নি। কিন্তু ভেতরে ভেতরে ক্রিকেটাররা ওই দাবি ঠিকই করেছেন। এ জন্য তারা নিজেরা বসেছিলেনও। বিসিবি সেসব খবর রেখেই উদ্যোগী হয়েছে।

কাল বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগ প্রধান আকরাম খান বলেন, ‘আমরা নীতিগতভাবে একমত যে বেতন বাড়ানো প্রয়োজন। তবে তা কত ভাগ সেটা এখনো চূড়ান্ত হয়নি। শিগগিরই এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত হতে পারে।’

গত এপ্রিলেও খেলোয়াড়দের বেতন বেড়েছিল শতভাগ। এবারো সেটা অব্যাহত থাকবে কি না সেটা এক্ষুনি নিশ্চিত নয়। তবে এবার ক্রিকেটারদের থাকছে ব্যস্ত সব শিডিউল। সেখানে তাদের কাছেও প্রত্যাশা অনেক। সে দিকটা বিবেচনা করলে এবারো তাদের সন্তুষ্ট করার ব্যাপারটা রয়েছে। সে ক্ষেত্রে শতভাগ বেতন বাড়ানো হতে পারে এবারো।

এ দিকে বেতনভাতা নিয়ে ভারতীয় ক্রিকেটাররা কথা না বললেও তাদের যে পরিমাণ অর্থ দেয়া হয় সেভাবে কেউ আর দেয় না। অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেটাররাও কয় মাস আগে আন্দোলন করে বেতন বাড়িয়েছিলেন। বাংলাদেশের খেলোয়াড়রাও ওই পথে হাঁটতে পারেন। বিসিবি সম্ভবত সেটা হতে দেবে না। তা ছাড়া ক্রিকেটার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের (কোয়াব) শীর্ষ পর্যায়ের সব নেতাই বিসিবিতে কোনো না কোনোভাবে জড়িত।

সাধারণত খেলোয়াড়দের এ সংগঠনই দেনদরবার করে থাকে। যেখানে নেতারাই বিসিবির প্রশাসনের ভূমিকায় সেখানে সাধারণ খেলোয়াড়রা আর কাকে নিয়ে আন্দোলনে যাবেন। এটা নিয়ে ভাবছেন সাধারণ ক্রিকেটাররাও।