প্রিন্স লুইসের খ্রিস্টীয়করণে থাকছেন না রাজা-রানি

কেট মিডলটন এবং প্রিন্স উইলিয়ামের ছেলে প্রিন্স লুইলসের খ্রিস্টীয়করণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকতে পারবেন না ব্রিটিশ রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ এবং তাঁর স্বামী প্রিন্স ফিলিপ। খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের কাছে গুরুত্ববহ নিজেদের ষষ্ঠ-পতি’র এই অনুষ্ঠানে অনুপস্থিত থাকার কথা নিশ্চিত করেছে কেনসিংটন প্রাসাদ।

ডিউক অব ক্যামব্রিজ প্রিন্স উইলিয়াম এবং ডাচেজ অব ক্যামব্রিজ কেট মিডলটনের সাথে আলাপ আলোচনা করেই প্রিন্স লুইসের খ্রিস্টীয়করণ অনুষ্ঠানে রানী দ্বিতীয় ভিক্টোরিয়া যাবেন না বলে ব্রিটিশ গণমাধ্যমগুলোতে আজ সোমবার প্রকাশিত এক সংবাদে বলা হয়।

আজ সোমবারই কেনসিংটন প্রাসাদে এই অনুষ্ঠানটির আয়োজন করা হবে। প্রায় শেষ মুহুর্তে এসে প্রিন্স ফিলিপসহ রানীর এই অনুপস্থিতির খবর পাওয়া যায়।ধারণা করা হচ্ছে, শারীরিক অসুস্থতার জন্যই শেষমেষ আনুষ্ঠানিকভাবে খ্রিস্টান ধর্মে দীক্ষিত হওয়ার দিনে ৯২ বছর বয়সী রানী ও ৯৭ বছর বয়সী তার স্বামী প্রিন্স ফিলিপকে পাশে পাচ্ছেন না লুইস।

গত এপ্রিলে, কোমরের নিচের অংশে অস্ত্রপচার করা হয় প্রিন্স ফিলিপে’র। আবার গত মাসে, সেন্ট পলস চার্চে এক অনুষ্ঠানে শারীরিক অসুস্থতার জন্য উপস্থিত হননি রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথ। এছাড়াও চলতি সপ্তাহে বেশকিছু রাষ্ট্রীয় কাজে ব্যস্ত থাকবেন ব্রিটিশ রানী।

আগামী মঙ্গলবার রাজকীয় বিমান বাহিনীর শতবর্ষ উদযাপন অনুষ্ঠানে যাওয়ার কথা রয়েছে দ্বিতীয় এলিজাবেথের। এরপর আগামী শুক্রবার লন্ডনে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সাথেও বৈঠক ঠিক হয়ে আছে তাঁর।প্রিন্স লুইস প্রিন্স উইলিয়াম এবং কেট মিডলটনের তৃতীয় সন্তান।

প্রিন্স উইলিয়াম প্রয়াত প্রিন্সেস ডায়ানা’র প্রথম সন্তান। গত মে মাসে তাঁর দ্বিতীয় ছেলে প্রিন্স হ্যারির সাথে সাবেক মার্কিন টিভি অভিনেত্রী মেগান মর্কেলের বিয়ে অনুষ্ঠিত হয়।-সূত্রঃ সিএনএন