এবার মাত্র ১১ বলেই জয় পেল নেপাল

বিস্ময় উপহার দিয়েই যাচ্ছে এশিয়া অঞ্চলের আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব। মালয়েশিয়ার বিপক্ষে মঙ্গলবার ৮ উইকেট হারিয়ে মায়ানমার সংগ্রহ করেছিল মাত্র ৯ রান। মালয়েশিয়ার প্রদীপ সিং বল হাতে নিয়েছিলেন ১ রান দিয়ে ৫ উইকেট। ১০ বল খেলে ২ উইকেট হারিয়ে জিতেছিল মালয়েশিয়া।

তাদের পর বুধবার দারুণ এক বিস্ময় উপহার দিয়েছে নেপাল ও চীন। বাছাইপর্বে চীন প্রথম ব্যাট করতে নেমে ১৩ ওভারে মাত্র ২৬ রানে অলআউট হয়। দলের একমাত্র ব্যাটসম্যান হং জিয়াং ইয়ান ২৭ বল খেলে ১১ রান করেন।

বাকিদের কেউ দুই অঙ্কের কোটা ছুঁতে পারেনি। বল হাতে নেপালের সন্দীপ লামিচানে ৪ ওভার বল করে ১ মেডনসহ ৪ রান দিয়ে নেন ৩ উইকেট। ৪ ওভার বল করে ১ মেডেনসহ ৫ রান দিয়ে ৩ উইকেট নেন রেগমি। আর ৩ ওভার বল করে ১ মেডেনসহ ১২ রান দিয়ে ৩ উইকেট নেন রাজবানসি।

২৭ রানের জয়ের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ১১ বল খেলে কোনো উইকেট না হারিয়ে ২৯ রান করে নেপাল। বিনোদ বান্দারি ৮ বল খেলে ৩টি চার ও ১ ছক্কায় অপরাজিত ২৪ রান করেন।

চীন অর্থনীতি কিংবা জনসংখ্যায় বিশ্বে সেরা হতে পারে। কিন্তু ক্রিকেটে অল্প জনসংখ্যা ও দুর্বল অর্থনীতির দেশ নেপালের কাছে ধরাশায়ী হয়েছে তারা। জনসংখ্যা ও অর্থনীতির মতো ক্রিকেটেও বিশ্বকে তাক লাগাতে হয়তো সময় লাগবে দেশটির।