বিশ্বকাপে ভারতকে হারাতে চান মোসাদ্দেক

সব জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে গেল মঙ্গলবার বিশ্বকাপের দল ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। তাতে অন্যতম চমক মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত। অপ্রত্যাশিতভাবে ১৫ সদস্যের চূড়ান্ত স্কোয়াডে ঠাঁই পেয়ে উচ্ছ্বসিত তিনি। বিশ্বমঞ্চে ভারতকে হারাতে মরিয়া ব্যাটিং অলরাউন্ডার।

চলমান ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে (ডিপিএল) দারুণ ফর্মে আছেন মোসাদ্দেক। সেই সুবাদেই বিশ্বকাপ স্কোয়াডে সুযোগ মিলেছে তার। সবশেষ ২০১৮ সালের এশিয়া কাপ ফাইনালে খেলেন তিনি। এরপর ঘরের মাঠে জিম্বাবুয়ে ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে বিবেচিত হননি। টাইগারদের নিউজিল্যান্ড সফরেও বাইরে ছিলেন তরুণ ক্রিকেটার।

ডিপিএলে ১২ ম্যাচে ৪২৮ রান করে নির্বাচকদের নজর কাড়েন মোসাদ্দেক। সেই সঙ্গে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে খেলার অভিজ্ঞতা আছে তার। ২০১৭ সালে ইংল্যান্ডের মাটিতে চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে খেলেছেন তিনি। সেই আসরে কার্ডিফে নিউজিল্যান্ডকে হারানোর নেপথ্যে বল হাতে বড় ভূমিকা রাখেন সম্ভাবনাময়ী ও প্রতিশ্রুতিশীল ক্রিকেটার। তবে সেমিফাইনালে ভারতের বিপক্ষে বড় ব্যবধানে হেরে বিদায় নেয় বাংলাদেশ।

বিশ্বকাপে সেই টিম ইন্ডিয়ার বিপক্ষেই ভালো কিছু করে দেখাতে মুখিয়ে মোসাদ্দেক। স্কোয়াডে সুযোগ পাওয়ার পর সাংবাদিকদের তিনি বলেন, বিশ্বকাপে প্রতিটা ম্যাচই গুরুত্বপূর্ণ। ভারতের বিপক্ষে খেলা নিয়ে ছোটবেলা থেকেই মনের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করে। আমার কাছে প্রতিবেশী দলটির সঙ্গে ম্যাচই বেশি উত্তেজনার মনে হয়।

বিশ্বকাপের মতো বড় মঞ্চে প্রথমবার সুযোগ পেয়েছেন। বিশ্ব আসরে মূল একাদশ সুযোগ পাওয়ার ব্যাপারেও আশাবাদী মোসাদ্দেক। বাংলাদেশের হয়ে ক্রিকেটের বৈশ্বিক আসরে স্মরণীয় কিছু করে দেখাতে চান তিনি।

সৈকত বলেন, যখন থেকে খেলা শুরু করি তখন থেকেই স্বপ্ন দেখি বিশ্বকাপে খেলব। সবারই বড় টুর্নামেন্টে ফোকাস থাকে। আমিও সেইভাবে চিন্তা করেছি, একদিন বিশ্বকাপে খেলব, দেশের জন্য কিছু করব। আমি ১৫ জনের দলে আছি। সুযোগ পেলে ভালো কিছু করার চেষ্টা করব।