রাজকন্যার বিয়েতে স্বর্ণের টয়লেট উপহার

এমন একটি ঘটনা ঘটেছে সৌদি রাজ পরিবারের এক বিয়েতে। সেখানে প্রিয় রাজকন্যার বিয়ের উপহার হিসেবে বাবা দিয়েছেন স্বর্ণের টয়লেট। তবে মেয়ের বিয়েতে টিভি ফ্রিজ, গাড়ি-বাড়ি উপহার দেয়ার কথা হরহামেশা শোনা গেলেও টয়লেট উপহার দেয়ার ঘটনা বিরল।

সৌদি বাদশাহ আব্দুল্লাহ বিন আব্দুল আজিজ। ২০০৫ সাল থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত তিনি সোদি আরবের বাদশাহ ছিলেন। এই রাজকীয় বিয়ে তার মেয়েরই।

এই রাজকন্যার নাম কী, বয়স কতো, তিনি রাজার কততম স্ত্রীর সন্তান কিছুই জানা যায়নি। বরের নাম কি তাও জানানো হয়নি। তবে বর সম্পর্কে দুই একটি ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, তার আরো সাতজন স্ত্রী রয়েছে। ১৬ সন্তানের জনক তিনি।

খবরে বলা হয়েছে, ২০১৪ সালের অক্টোবরের কোনো একদিন এই বিয়েটি হয়েছিল।

সেই বিয়েতে বাথরুম উপহার দেন সৌদির রাজা আবদুল্লাহ। বাথরুমের শুরু থেকে শেষ পুরোটাই নিখাদ সোনায় মোড়ানো। দরজা‚ মেঝে‚ ছাদ‚ বেসিন‚ কমোড‚ পানির কল সবই সোনায় গড়া।

রাজকন্যার পোশাক কিনতেও রাজা খরচ করেন তিন কোটি ডলার। বাংলাদেশ টাকায় তা ২৩৩ কোটি। পিরামিড সাইজের এই পোশাকও সোনা দিয়ে তৈরি। স্বর্ণের সেই পোশাক পরা রাজকন্যাকে দেখতে লাগছিল ঠিক প্রাচীন মিশরের ফারাও-এর রানীর মতো।

তবে রাজপরিবারের এ বিয়েতে এমন জৌলুসের পাশাপাশি রুচি নিয়েও প্রশ্ন ওঠেছে। যে ছেলে এর আগে সাতবার বিয়ে করেছে তার কাছে মেয়ে দিয়ে আবার এমন জৌলুস কেন, প্রশ্ন তুলেছেন অনেকেই।