প্রকাশ্যে ঝগড়া করছেন অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলা!

ডিজিটালের যুগ৷ আগে যা কথা ফেস টু ফেস হতো এখন সবই হোয়্যাটসঅ্যাপ, ফেসবুকের মাধ্যমে প্রকাশ পায়৷ প্রেম, ঝগড়া, ঘৃণা সবই এখন সোশ্যাল মিডিয়ার আয়ত্তে৷ যা বলার খোলাখুলি বলা যায় টেকনিকালোজির দুনিয়ায়৷ সেই একই পথে হাঁটলেন অঙ্কুশ এবং ঐন্দ্রিলা৷ ট্যুইটারে সকলের সামনে ঝগড়া শুরু করে দিলেন দু’জনে৷ অবশ্য অঙ্কুশই প্রথম লেগ পুলটা শুরু করেছেন৷ আর তাতেই বাড়তে থাকে তাঁদের ঝগড়া৷

চিন্তা নেই৷ কেনও সিরিয়াস ঝগড়া নয়৷ নিতান্তাই মজার ছলে একে অপরের সঙ্গে ঝগড়া করেছেন তাঁরা৷ সম্প্রতি ঐন্দ্রিলা একটি ছবি শেয়ার করে ক্যাপশনে লিখেছিলেন, “Style is a way to say who u are without having to speak.” এই ক্যাপশন নিয়েই যত ঝামেলা৷ অঙ্কুশ এই ছবিটির কমেন্টে লিখেছেন, “নিজের টুপি পরে যেদিন পোস্ট দিবি সেইদিন বড়ো বড়ো ক্যাপশন দিস৷ চোর” চোর শব্দটা থেকেই ঝগড়ার সূত্রপাত৷

ঐন্দ্রিলা পাল্টা জবাবে লিখেছেন, “সলমন খানের টুপি এটা৷ আতি পাতি লোকজনদের এসব টুপি মানায় না৷ টপ লেভেল ছাড়া এই টুপি কাউকে পরলে মানাবে না৷ এটা এবার থেকে আমার মাথাতেই থাকবে৷” তাঁদের কনভারসেশন থেকে এটুকু স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে যে চুপিটা ঐন্দ্রিলার নয়৷ তিনি ছবিতে পোজ দেওয়ার জন্যই টুপিটা কারও থেকে ধার নিয়ে পরেছিলেন৷ আর সেই টুপিটা সম্ভবত অঙ্কুশের হতে পারে৷ এমনটাই আন্দাজ করছেন ভক্তরা৷ এই ঝগড়ার পেছনে গোয়ার সুন্দরীর কোনও হাত নেই৷ শ্যুটিং করতে গিয়ে তাঁর সঙ্গে কেবল ছবি তুলেছিলেন অঙ্কুশ৷ সেটা যে অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলার ঝগড়ার কারণ নয় তা জেনে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলছে ভক্তরা৷

তবে ঝগড়া দেখে অনুরাগীরা বেশ মজা হয়েছে৷ দু’জনের দুষ্টু মিষ্টি ঝগড়ায় নেটিজেনরা বেশ এন্টারটেনড হয়েছে৷ সদ্য মুক্তি পেয়েছে অঙ্কুশের ‘ভিলেন’ ছবির ফার্স্ট লুক৷ মুখে নৃশংসতার ছাপ, তীক্ষ্ণ দুই চোখে নেই কোনও ভয়, মৃত্যুকে জয় করার ক্ষমতা রাখে সে৷ যেই অভিনেতা অঙ্কুশকে দর্শক এতদিন দেখে এসেছে, তা যেন আপাদমস্তক পাল্টে গিয়েছে৷

পোস্টারে তাঁর হাবভাব বলে দিচ্ছে এক নিমেষে সব শেষ করে দেবে সে৷ ভরা চোখে কোথাও যেন রয়েছে চাপা দুঃখ৷ দু’চোখের আড়ালে রয়েছে না বলা অনেক কথা৷ এমন কোনও কারণ যা তাঁকে ভিলেন হতে বাধ্য করেছে৷ কী সেই কারণ? জানা যাবে পুজোর মরশুমে৷ ‘হইচই’র মজা, ‘রাজা’ এবং ‘শাহজাহান’র রাজত্ব, কিশোরময় ‘কিশোর’র মাঝে ‘ভিলেন’ ও নাম লেখালেন পুজো রিলিজের তালিকায়৷

অঙ্কুশ ছাড়াও পোস্টারের আরেক চমক মিমি চক্রবর্তী৷ ভিলেনের সঙ্গেই তাল মিলিয়ে লড়াই করবেন তিনি৷ তাই কি? নাকি ভিলেনের প্রেমের জালেই জড়িয়ে ফেলবেন নিজেকে? সোশ্যাল মিডিয়া তোলপাড় হয়ে চলেছে ‘ভিলেন’ অঙ্কুশের এন্ট্রি নেওয়ায়৷ এবারে আসা যাক পোস্টারের খুঁটিনাটি বিষয়৷

মিমি এবং অঙ্কুশের ফিজিক উত্তেজনা ছড়িয়েছে চারিদিকে৷ হিরো হিরোইনদের এমন টোনড বডি এর আগে টলিউডে দেখা গিয়েছে কিনা তা নিয়ে যথেষ্ট সন্দেহ আছে৷ অঙ্কুশের সিক্স প্যাক অ্যাবসের থেকে যেন নজরই সরছে না৷ অবশ্য শুধু অঙ্কুশ বললে ভুল হবে৷ মিমি ফিগারও রীতিমত ফিটনেস গোলস দিচ্ছে মেয়েদের৷ তবে ছবিটি পুজোয় কোন দিন মুক্তি পাবে সে বিষয় এখনও কোনও মন্তব্য করেননি পরিচালক বাবা যাদব৷-কলকাতা২৪x৭