পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় নির্যাতন নিপীড়ন পাশবিক হত্যাকান্ডের বিরুদ্ধে সমাবেশ ও মানববন্ধন

জাহিদ রিপন, পটুয়াখালী প্রতিনিধি: নির্যাতন নিপীড়ন পাশবিকতা রুখে দাড়াও-বিবেক জাগ্রত করুন মানুষরুপী দানবদের প্রতিরোধ করুন- এই শ্লোগানকে সামনে রেখে পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় নির্যাতন নিপীড়ন পাশবিক হত্যাকান্ডের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সমাবেশ ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় শহীদ সুরেন্দ্র মোহন চৌধুরী সড়ক এ কর্মসূচী অনুষ্ঠিত হয়েছে। মহিপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেনীর ছাত্রী ইভাকে ধর্ষন শেষে হত্যা ও ধূলাসার মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী তুলিকে ছুরিকাঘাত করে হত্যা চেষ্টার প্রতিবাদে এ কর্মসূচীর আয়োজন করে বাংলাদেশ উদীচী শিল্পী গোষ্ঠী, কলাপাড়া মহিলা ক্লাব, মানিকমালা খেলাঘর আসর, নাগরিক উদ্যোগ ও প্রগতি পাঠাগার ।

এ প্রতিবাদ সমাবেশ ও মানববন্ধনে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ অংশগ্রহন করেন। নাগরিক কমিটি কলাপাড়া শাখার আহবায়ক কমরেড নাসির তালুকদারের সভাপতিত্বে এসময় বক্তব্য রাখেন কলাপাড়া প্রেসক্লাব সভাপতি মেজবাহ উদ্দিন মাননু, কুয়াকাটা প্রেসক্লাব সভাপতি মিজানুর রহমান বুলেট আকন, সরকারি মোজাহার উদ্দিন বিশ্বাস কলেজের প্রভাষক নিজাম উদ্দিন, কলাপাড়া মহিলা ক্লাব সভাপতি নমিতা রানি দত্ত, কাউন্সিলর মনোয়ারা বেগম ও বিজলী রানি, ছাত্র যুব ঐক্য পরিষদ সভাপতি নীল রতন কুন্ড প্রমূখ। সমাবেশে বক্তরা ইভা’র হত্যাকারীদের ও তুলিকে হত্যা চেষ্টায় জড়িতদের অবিলম্বে দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবী জানান।

উল্লেখ্য, গত (০১.০৯.২০১৮) শনিবার সকালে বিদ্যালয়ের যাওয়ার পথে স্থানীয় বখাটে ধুলাসর এলাকার সোলায়মানের পুত্র নাঈম তুলির পথ আটকে প্রেম প্রস্তাব দেয়। এতে সে রাজী না হলে নবম শ্রেনীর ছাত্রী তুলিকে ছুরিকাঘাত করে হত্যার চেষ্টা চালায়। অপরদিকে গত (১৪.০৮.২০১৮) মঙ্গলবার রাত ১০টায় মহিপুর থানার সদর ইউনিয়নের সেরাজপুর গ্রামে মাকে ঘরে বেঁধে রেখে কাঠ মিস্ত্রি ইসমাইল হোসেনের ষষ্ঠ শ্রেণীতে পড়ুয়া মেয়ে ইভাকে ধর্ষনের পর হত্যা করে দূর্বৃত্তরা।