সুমিতকে একনাগারে ১৪টি চুমু দিয়েছে স্পর্শিয়া !

ভালাবাসার টানে বাসা থেকে প্রেমিকা স্পর্শিয়া ভেগে আসে প্রেমিক সুমিতের সঙ্গে। নতুন করে ঘর বাঁধার স্বপ্ন জাল বুনে দুই ভালাবাসার কপোত-কপোতি। ভালাবাসার বন্ধনকে দৃঢ় করত তারা বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়।

শুরু হয় দুজনার তুমুল রোমান্স। চলতে থাকে নতুন কাপলের ভালোবাসার নানান খুঁনসুটি। কখনো ছোট্ট বাসার ভেতর আবার কখনো ঘরের বাইরের ছাদে চলে তাদের ভালোবাসা বিনিময়। রাত-দুপুরে চায়ের কাপে চলে তুমুল বৃষ্টি। রোমান্স, খুনসুটি আর চুমুতে চুমুতে চলতে থাকে ভালোবাসার সহবাস। এভাবেই এক মধুময় জীবনের গল্প এগিয়ে চলে।

এক গোপন সূত্রে জানা যায়, এই মিউজিক ভিডিওতে স্পর্শিয়া একনাগারে ১৪টি চুমু দিয়েছেন সুমিতকে। এটা অবশ্য মিউজিক ভিডিও এর খাতিরেই।

কিছুদিন আগে ভিজুয়ালাইজার টিম সংগীতশিল্পী পিয়াল হাসান গান ‘চায়ের কাপে তুমুল বৃষ্টি’ এর এই ভিডিওটি নির্মাণ করে। যেখানে সম্পূর্ন ভিন্ন আবহে খুঁজে পাওয়া যাবে স্পর্শিয়া ও সুমিত সেন গুপ্তকে।

চমৎকার কথার এই গানটি লিখেছেন জামাল রেজা। গানটি টিউন ও মিউজিক করছেন শিশির। কোরিওগ্রাফীতে ছিলেন নিডো খান। ভিজুয়্যালাইজার টিমের এই ভিডিও নিমার্ণে ডিওপি হিসেবে ছিলেন ফরহাদ হোসেন। গানটি নিয়ে সংগীতশিল্পী পিয়াল হাসান দারুন সন্তুষ্ট।

তিনি বলেন, অনকদিন পর এমন স্বাদের একটি গান করেছি। আমার ভক্তরা গানটির মাঝে আগের সেই পিয়াল হাসানকেই খুঁজে পাবেন। আর মিউজিক ভিডিওটি নির্মাতা অনেক যত্ন দিয়ে তৈরী করেছেন। স্পর্শিয়া-সুমিতও অনেক চমৎকার অভিনয় করেছেন। আশা করি, গানটি শ্রোতা-দর্শকদের প্রত্যাশা পূরণ করতে পারবে।’

এদিকে গান ও মিউজিক ভিডিওটির নির্মাণ প্রসঙ্গে স্পর্শিয়া বলেন, ‘অনেকদিন পর এমন মিষ্টি স্বাদের গানের মিউজিক ভিডিওটিতে কাজ করলাম। গানের কথা ও গায়কীর সাথে সুমিতের সঙ্গে কাজটি আমার ভিষণ পছন্দ হয়েছে। আশা করি, দর্শক-শ্রোতারা ভাল একটি মিউজিক ভিডিও এর স্বাদ পাবে।’

গতকাল শুক্রবার (০৭ সেপ্টেম্বর) রাতে পিয়াল হাসানের নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেলে গানটির মিউজিক ভিডিও প্রকাশ পেয়েছে।