কলেজ জীবনে যে ৫ টি নিয়ম সকলের মেনে চলা উচিৎ

আপনি স্নাতক কোন বিষয়ে কোন প্রতিষ্ঠানে করবেন এটা নির্ভর করে আপনার কলেজ পর্যায়ে প্রস্তুতির উপরে। এমন অনেকেই আছেন যারা কলেজে তেমন প্রস্তুতি নেন নি বলে স্নাতক পর্যায়ে কোনো ভালো প্রতিষ্ঠানে ভালো বিষয়ে পড়ার সুযোগ থেকে বঞ্চিত হয়েছেন। এ কারণে কলেজ লাইফে এমন কিছু নিয়ম মেনে চললে আপনার স্নাতক সম্মান ভালো কোনো প্রতিষ্ঠানে করা খুব সহজ হয়ে যাবে।

১. পরিকল্পনা করুন :
প্রথমেই আপনি একটি পরিকল্পনা তৈরি করে ফেলুন যে আপনি ঠিক কোন বিষয়ে কোন প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হতে ইচ্ছুক। আপনি যদি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে আগ্রহী হন সে অনুযায়ী পরিকল্পনা করে ফেলুন। আপনি যদি সাইন্সের ছাত্রছাত্রী হয়ে থাকেন তাহলে হয়তবা আপনার প্রথম টার্গেট থাকে মেডিক্যাল বা বুয়েট। এক্ষেত্রে আপনার প্রস্তুতি ভিন্নভাবে নিতে হবে। কারণ ভার্সিটি পরীক্ষা এবং মেডিক্যাল পরীক্ষা একরকম হবে না। এজন্য আপনার পছন্দের জায়গাটা আগে নির্বাচন করুন এরপরে সেই অনুযায়ী প্রস্তুতি গ্রহণের পরিকল্পনা করুন। আপনি এর জন্য বিভিন্ন কোচিংয়ের সহায়তাও নিতে পারেন। আবার আপনি যদি কোনো সাংস্কৃতিক অঙ্গনে যেমন নাট্যকলা বা চারুকলায় পড়তে চান এর পরিকল্পনা একটু ভিন্নরকম হবে।

২. সময়ের সদ্ব্যবহার করুন :
আপনি হয়তবা ভাবছেন পরীক্ষার অনেক দেরী আছে পড়ার অনেক সময় পাওয়া যাবে। এটা নিতান্তই ভুল কথা। কেননা সময়ের সাথে সাথে প্রতিযোগিতাও অনেক বেড়ে গিয়েছে। আপনি একটু হেলাফেলা করলে হয়ত আপনার আগে চলে যাবে ১০০০ হাজার ছাত্রছাত্রী। এ কারণে সময়ের যথোপযুক্ত ব্যবহার করুন। কলেজ পর্যায় থেকেই একটু একটু করে প্রস্তুতি নিয়ে ফেলেন। আর এইচ.এস.সি পরীক্ষার পরের সময়টুকুতে ভালোভাবে প্রস্তুতি গ্রহণ করুন।

৩. জানার আগ্রহ থাকতে হবে :
আপনি ভার্সিটি পড়তে চান তাই প্রস্তুতি নিচ্ছেন বিষয়টা শুধুই এমন থাকলে আপনি পড়ার সুযোগ নাও পেতে পারেন। আপনার কোনো বিষয়ে জানার আগ্রহ থাকতে হবে। ধরুন রাস্তায় যেতে কোনো বিষয় মাথায় এল কিন্তু তার উত্তর আপনার জানা নেই। বাসায় গিয়ে আপনি সেটি ভুলেই গেলেন। তাহলে আপনি কিছু শিখতে পারবেন না। সেই উত্তরটা জানার আগ্রহ আপনার মাঝে থাকতে হবে। তাহলে আপনি অনেক বেশি জানতে পারবেন এবং প্রতিযোগিতায় এগিয়ে যাবেন।

৪. বেশি আড্ডা দেয়া বন্ধ করুন :
কলেজ লাইফে অনেক মজা করা হয়। কিন্তু আপনার টার্গেট যদি বড় থাকে তাহলে খুব সহজেই আপনি এই ধরনের আড্ডা ছেড়ে দিতে পারেন। পরে আড্ডা দেয়ার অনেক সুযোগ আপনার জীবনে হয়ত আসবে। এ কারণে বেশিরাত পর্যন্ত বন্ধু বান্ধবদের সাথে আড্ডা দেয়া বন্ধ করে বাড়িতে পড়ায় মনোযোগ বসাতে পারেন। এটি অনেক কাজে দেবে।

৫. স্বপ্ন দেখুন :
স্বপ্ন দেখা ভালো। আপনি যত স্বপ্ন দেখবেন আপনার জন্য পথ তত খুলে যাবে। আপনার স্বপ্ন পূরণে অবশ্যই এগিয়েও যেতে হবে। স্বপ্ন দেখলে মানুষের চিন্তাশক্তি বেড়ে যায়। একমাত্র স্বপ্নই আপনাকে উন্নতির শিখরে নিয়ে যেতে সক্ষম। তাই অনেক বেশি ভালো ভালো স্বপ্ন দেখুন এবং এগুলো বাস্তবায়ন করার জন্য সে অনুযায়ী কাজ করুন। সফলতা একদিন আসবেই।