দ্রুত ওজন কমাতে সাহায্য করবে “সঠিক” সকালের নাস্তা

ওজন কমানোর আশায় অনেকেই ডায়েটিং করে থাকেন। আবার অনেকেই বাড়তি ওজন ঝেড়ে ফেলার জন্য সকালের নাস্তা খান না। অনেকের মনেই এই ভুল ধরণা রয়েছে যে সকালের নাস্তা না খেলে ওজন কমানো যাবে সহজে। কিন্তু এটা খুবই ভুল ধারণা। কারণ, সকালের নাস্তা না খেলে ওজন কমে না বরং বাড়ে। জানতে চান কিভাবে? তবে শুনুন।

সকালের নাস্তা পুরো দিনের এনার্জি ধরে রাখে দেহে। যদি আপনি সকালের নাস্তা না খান তবে দুপুররের আগে আগেই আপনার দেহে এনার্জির ঘটতি হবে এবং আপনি দুপুরের খাবার একবারে বেশি খেয়ে ফেলবেন। যার পুরোটাই জমা হবে আপনার শরীরে ফ্যাট হিসেবে। সুতরাং সকালের নাস্তা বাদ দেয়া যাবে না কোনোভাবেই। আর যদি দ্রুত ওজন কমাতে চান তবে সকালের নাস্তায় যোগ করুণ প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার।

সম্প্রতি ‘ইউনিভার্সিটি অফ মিজুউরি’র করা একটি গবেষণায় দেখা যায় যারা সকালের খাবারে প্রোটিনের পরিমাণ বাড়িয়ে কার্বোহাইড্রেট খাওয়া বন্ধ রাখেন তারা দ্রুত ওজন কমাতে পারেন। তারা আরও বলেন, সকালে একটি গোটা ডিমের তেল ছাড়া অমলেট, এক টুকরো পনির বা খানিকটা ছানা এবং এক গ্লাস ফ্যাটবিহীন দুধ পুরো দিনের খাবার চাহিদা কমিয়ে দেয়। ফলে মানুষ নিজে থেকেই কম খাবার খান। এতে ওজন কমে দ্রুত। তবে হ্যাঁ, সকালের নাস্তায় কার্বোহাইড্রেট জাতীয় খাবার অতি অল্প কিংবা না রাখাই ভালো।

দিনের শুরুতে ৩৫ গ্রাম প্রোটিন শরীরে খাবারের চাহিদা পূরণ করে প্রায় ৬০%। এই ৩৫ গ্রাম প্রোটিন ৪টি ডিমের অমলেট ও ২ টুকরো মাংসের সমান। আপনি যদি কার্বোহাইড্রেট না ছাড়তে চান তবে সকালে একটি লাল আটার রুটির সাথে একটি ডিম ও এক টুকরো মাংস রাখুন বা এক বাটি ডাল রাখুন। সাথে চাইলে ১ টুকরো পনির বা কিছু কাঠ বাদামও রাখতে পারেন। এতেই আপনার ওজন কমবে অনেক দ্রুত।