ধোনি-কোহলিকে ছাড়িয়ে গেলেন মুশফিক

পাকিস্তানের বিপক্ষে আজ অঘোষিত সেমিফাইনালে মাঠে নেমেছে বাংলাদেশ দল। আজকের ম্যাচে পাকিস্তানকে হারাতে পারলে তৃতীয়বারের মত এশিয়া কাপের ফাইনাল খেলবে বাংলাদেশ দল। আর এই ম্যাচে দারুণ এক রেকর্ড গড়লেন বাংলাদেশ দলের উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম।এশিয়া কাপের ওয়ানডে ফরম্যাটের রান তালিকায় সেরা দশে জায়গা করে নিয়েছেন তিনি।

একই সঙ্গে ভারতীয় উইকেট রক্ষক ব্যাটসম্যান মহেন্দ্র সিং ধোনি এবং অধিনায়ক বিরাট কোহলিকে ছাড়িয়ে গেছেন মুশফিক। পাকিস্তানের বিপক্ষে আজকের ম্যাচে মাঠে নামার আগে ধোনির চেয়ে ১৮ রান ও কোহলির চেয়ে ১৯ রানে পিছিয়ে ছিলেন মুশফিক। আর পাকিস্তানের বিপক্ষে আজকের ম্যাচে তা পূর্ণ করেন মুশফিক। ৯৯ রান করেন তিনি। এরই ফলে তাদেরকে ছাড়িয়ে গেছেন মুশফিক।

এশিয়া কাপে ১৮ ম্যাচে ধোনির রান ৬১২ এবং ১১ ম্যাচে কোহলির রান ৬১৩। অন্যদিকে ২০টি এশিয়া কাপের ম্যাচে মুশফিকের রান ৬৯৪।

ওয়ানডে ফরম্যাটের এশিয়া কাপে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক-

১। সানাথ জয়সুরিয়া (শ্রীলঙ্কা)- ২৫ ম্যাচে ১২২০

২। কুমার সাঙ্গাকারা (শ্রীলঙ্কা)- ২৪ ম্যাচে ১০৭৫

৩। শচীন টেন্ডুলকার (ভারত)- ২৩ ম্যাচে ৯৭১

৪। শোয়েব মালিক (পাকিস্তান)- ১৬ ম্যাচে ৭৫৬

৫। অর্জুনা রানাতুঙ্গা (শ্রীলঙ্কা)- ১৯ ম্যাচে ৭৪১

৬। রোহিত শর্মা (ভারত)- ২১ ম্যাচে ৬৯৭

৭। মুশফিকুর রহিম (বাংলাদেশ)- ২০টি ম্যাচে ৬৯৪

৮। মাহেলা জয়াবর্ধনে (শ্রীলঙ্কা)- ২৮ ম্যাচে ৬৭৪

৯। অরবিন্দ ডি সিলভা (শ্রীলঙ্কা)- ২৪ ম্যাচে ৬৪৫

১০। মারভান আতাপাত্তু (শ্রীলঙ্কা)- ১৩ ম্যাচে ৬৪২

১১। বিরাট কোহলি (ভারত)- ১১ ম্যাচে ৬১২

১২। মহেন্দ্র সিং ধোনি (ভারত)- ১৮ ম্যাচে ৬১৩