তাঁর ওই কৌশলের কাছেই নাস্তানাবুদ হয়েছে পাকিস্তান

পাকিস্তানকে হারিয়ে এশিয়া কাপের ফাইনালে পৌঁছে গেছে বাংলাদেশ। ফাইনাল বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ ভারত। আজ (শুক্রবার) এশিয়া কাপের ফাইনাল ম্যাচ। এদিনই নিশ্চিত হবে এবার এশিয়ার শ্রেষ্ঠত্ব কারা অর্জন করবে।

শিরোপার লড়াইয়ে এদিন মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ ও ভারত। ‍দুবাই ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় বিকাল সাড়ে পাঁচটায়।

বুধবার প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ২৩৯ রান করেও দুর্দান্ত জয় পেয়েছে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে। ৩৯ রানের এই জয় পেতে নতুন কৌশল অবলম্বন করেছিলেন দি ক্যাপ্টেন মাশরাফি। তার ওই কৌশলের কাছেই নাস্তানাবুদ হয়েছে পাকিস্তান।

ম্যাচ শেষে মাশরাফি বলেন, আমরা কিছু পরিবর্তন এনেছিলাম। সাধাণত আমি নিজেই বোলিং উদ্বোধন করি। কিন্তু এ দিন আমরা শুরু করি মিরাজকে দিয়ে। তাতেই ফল পাওয়া যায় হাতে হাতে। বোলাররা খুব ভালো কাজ করেছে। বিশেষ করে আমরা খুব বড় না না পাওয়ায় বোলাদের দায়িত্ব ছিল অনেক বেশি।

তবে তিনি মুশফিকুর রহীম আর মোহাম্মদ মিঠুনের কৃতিত্বও ভোলেননি। দলের বিপর্যয়কর মুহূর্তে তারাই হাল ধরে দলকে লড়াই করার মতো অবস্থানে এনে দিয়েছিলেন।

মাশরাফি বলেন, মুশি আর মিঠুন ভালো ব্যাট করেছে। আমরা আজ আমাদের ফিল্ডিং নিয়েও গর্বিত। অনেক দিন এমন ভালো ফিল্ডিং আমরা করিনি।

মাশরাফি বলেন, আমরা আশা করছি যে খেলোয়াড়রা ভালো ফিল্ডিং করার গুরুত্ব বুঝতে পারবে।
তিনি বরেন, তবে আমাদের ব্যাটিং আর বোলিংয়ে আরো উন্নতি করতে হবে। আমি ভাগ্যবান যে আমি আমার ক্যাচ ফেলিনি। কারণ শোয়েব মালিক দারুণ ফর্মে ছিলেন। তবে সার্বিকভাবে আমাদের ফিল্ডিং হয়েছে খুবই ভালো।

ফাইনালে ভারত প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আমরা সবসময় জানি, ভালো খুবই সিরিয়াস সাইড। আমাদের দলে সাকিব নেই, তামিম নেই। তবে আশা করি, আজ শুক্রবার তাঁরা তাদের খেলাটি দেখাবে।