পেস এ্যাটাকে সেরা বাংলাদেশ : চামিন্দা ভাস

বাংলাদেশের পেস বোলিং পারফরম্যান্সে বিস্মিত ও মুগ্ধ হয়ে টাইগার পেস এ্যাটাককে সেরা বোলিং এ্যাটকা বলে আখ্যায়িত করেছেন শ্রীলঙ্কার কিংবদন্তি পেসার চামিন্দা ভাস।

সম্প্রতি একটি বেসরকারি টেলিভিশনে দেওয়া সাক্ষাতকারে তিনি বলেন, শেষ বল পর্যন্ত লড়াই করার মানসিকতা নিয়ে খেললে ফাইনালে হারের প্রবণতা থেকে বেরিয়ে আসবে বাংলাদেশ। ভবিষ্যতে বাংলাদেশে কাজ করার সুযোগ পেলে নিজের ক্রিকেট অভিজ্ঞতার পুরোটা উজাড় করে দেওয়ার কথাও বললেন ভাস। তিনি বিশ্বাস করেন, টাইগারদের এ দলটা যাবে অনেকদূর।

চামিন্দা ভাস সফল লঙ্কান ফাস্ট বোলার। শুধু লঙ্কা কেনো। ওয়ানডেতে স্বদেশি মুরালিধরন, পাকিস্তানি ওয়াসিম আকরাম ও ওয়াকার ইউনুসের পর সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি। তার ঝুলিতে ৪০০ ওয়ানডে উইকেট। টেস্ট উইকেট ৩৫৫। এমন অভিজ্ঞ এক ক্রিকেটার বলছেন, টাইগার বোলারদের দেখে তিনি রীতিমত বিস্মিত। বারবার ফাইনালে হারছে বাংলাদেশ। কিভাবে উত্তরণ সম্ভব সেটাও বাতলে দিলেন ভাস।

শ্রীলঙ্কা সাবেক বোলার চামিন্দা ভাস বলেন, বাংলাদেশের বোলিং অ্যাটাক খুব ভালো। রীতিমত বিস্ময়কর। আমি নিশ্চিত করে বলতে পারি, কোচের পরামর্শে বোলাররা কঠোর পরিশ্রম করছে। তারা চেষ্টা করছে তাদের সেরাটা দেওয়ার। আপনার প্রবল ইচ্ছে থাকতে হবে। শেষ বল পর্যন্ত লড়াই করতে হবে। এশিয়া কাপে বাংলাদেশ খুব ভালো খেলেছে। ভারতের জন্যও ম্যাচটা জেতা কঠিন ছিলো। কিন্তু এখন সবাইকে বিশ্বাস রাখতে হবে যে আমরা পারব। আমরা জিতবো। আমি খুব নিশ্চিত করে বলতে পারি এ অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসবে বাংলাদেশ।

চামিন্দা ভাস এখন কোচিং করাচ্ছেন শ্রীলঙ্কা যুব দলের। দু’বছর আগে গুঞ্জন উঠেছিলো, টাইগারদের বোলিং কোচ হওয়ার। শেষ পর্যন্ত তা হয়নি। আবারো কোনো প্রস্তাব পেলে সানন্দে গ্রহণ করার ইচ্ছে কিংবদন্তি পেসারের।

তিনি বলেন, আমি কোথায় কোচিং করাচ্ছি সেটা কোনো বিষয় নয়। আমি আমার অভিজ্ঞতা ভাগ করতে চাই। ছেলেদের উৎসাহিত করতে চাই। সেরকম কোনো প্রস্তাব পেলে অবশ্যই আমার সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করবো। গড়ে তোলার চেষ্টা করবো তাদেরকে যারা বাংলাদেশের হয়ে ভালো করতে চায়।

চামিন্দা ভাস বাংলাদেশে কাজ করবেন কিনা সেটা সময় বলে দেবে। তবে তার কণ্ঠে ইতিবাচক কথাগুলো নিঃসন্দেহে অনুপ্রেরণা জোগাবে টাইগারদের।