জেনে নিন অ্যাভাকাডো ফলের বহুবিধ গুণাবলী

গাঢ় সবুজ রঙ ও তুলতুলে নরম শ্বাস, তুলনাহীন স্বাদের এই ফলটির নাম অ্যাভাকোডা। এটা মধ্য আমেরিকার একটি ফল। দেখতে আকর্ষণীয় না হলেও বহুবিধ গুণ রয়েছে অ্যাভাকাডোর। জেনে নিন ফলটি কিভাবে খেলে কী উপকার হয়-

অ্যাভাকাডোর সালাদ উচ্চ রক্তচাপ কমায়

পাকা অ্যাভাকোডার খোসা ছাড়িয়ে টুকরো করে কেটে ভিনেগার দিয়ে ব্লেন্ডারে ভালো করে মিশিয়ে নিন। এবার সালাদের সাথে মিশ্রণটি ঢেলে দিন। এই সালাদ নিয়মিত খেলে উচ্চ রক্তচাপ কমানো সম্ভব।

অ্যাভাকাডো ড্রিংক

অ্যাভাকোডার সাথে নারকেলের দুধ, সামান্য হলুদগুঁড়া, আদা বাটা, লবণ আর মধু মিশিয়ে পাঁচ মিনিট রান্না করে নিন। এক চিমটি দারচিনির গুঁড়া ছিটিয়ে খেয়ে নিন। এই ড্রিংক ধমনীকে মসৃণ করবে।অ্যাভাকাডো মাখন

২০০ গ্রাম মাখনের সঙ্গে অর্ধেক অ্যাভাকোডা কেটে ব্লেন্ডারে ভালো করে মিশিয়ে রুটির উপর লাগিয়ে নিন। নিয়মিত এভাবে খেলে রক্তে চর্বির মাত্রা কমবে।

অ্যাভাকাডো স্মুদি

অ্যাভাকাডোর সাথে দই, কলা, পালংশাক পাতা এবং পানি দিয়ে ব্লেন্ড করে নিন। এই স্মুদি প্রতিদিন খেলে হৃদপিণ্ড শক্তিশালী হয়।

অ্যাভাকাডো ফ্যাট

অ্যাভাকাডোতে আছে প্রচুর প্রাকৃতিক ফ্যাট। তবে ভয়ের কিছু নেই। এই ফলে থাকা অসম্পৃক্ত ফ্যাটি অ্যাসিড কোলেস্টেরল মাত্রা স্বাভাবিক রাখতে সহায়তা করে।

অ্যাভাকাডো তেল

ঘরে বসেই অ্যাভাকাডো তেল তৈরি করতে পারবেন। ২ কেজি পাকা ফলের খোসা ছাড়িয়ে ছোট ছোট করে কেটে নিয়ে ১০০ গ্রাম পানিতে গরম করুন। এবার আলু ভর্তার মত পিষে তেল বের করুন। এরপর ছেঁকে বোতলে ভরে রাখুন। প্রাপ্ত তেল দুই সপ্তাহ খেতে পারবেন। অ্যাভাকাডো তেল চোখ, ত্বক, লিভার ও হাড়ের জয়েন্ট ভালো রাখে।—আরটিভি অনলাইন