হাঁস খেলে ওজন বাড়ে!

হাঁসের মাংস খেতে পছন্দ করেন না এমন মানুষ খুব কমই আছে। তবে শীতে হাঁসের মাংস খাওয়ার মজাই আলাদা। নানাভাবেই রান্না করে খাওয়া যায় হাঁসের মাংস। তবে শুধু খাওয়াই নয়, সুস্বা’স্থ্যের জন্যও হাঁসের মাংস বেশ উপকারী। বিশেষ করে যারা ওজন বাড়াতে চান, তাদের জন্য এই মাংস যাদুর মতো কাজ করে। ১০০ গ্রাম হাঁসের মাংসে যা থাকে, ক্যা’লরি- ১৩০, আমিষ- ২১.৬, শর্ক’রা- ০.১, চর্বি- ৪.৮, ক্যাল’সিয়াম- ৪।

হাঁসের মাংস প্রোটি’নের ভালো উৎস। এতে নিয়াসিন, ফসফরাস, রিবো’ফ্লোবিন, আয়’রন, জিং’ক, ভিটা’মিন বি৬ এবং থায়ামিন আছে। এছাড়া অল্প পরিমাণে আছে ভিটামিন বি১২ এবং ম্যাগ’নেশিয়াম। চামড়াসহ হাঁসের মাংসে অধিক মাত্রায় ফ্যাট এবং কোলে’স্টেরলও আছে। গরুর মাংসের চেয়ে হাঁসের মাংসে চর্বির পরিমাণ বেশি। এই চর্বির মধ্যে সম্পৃক্ত চর্বির পাশাপাশি অসম্পৃক্ত চর্বিও রয়েছে। সম্পৃক্ত চর্বিতে আছে কোলে’স্টেরল।

তাই ওজন বাড়াতে হাঁসের মাংস খাওয়া উত্তম। খনিজ উপাদানের মধ্যে ক্যাল’সিয়াম, আয়’রন, ফস’ফরাস, সোডি’য়াম, জিংক, কপার, ম্যাগ’নেসিয়াম ও সেলে’নিয়াম আছে। হাঁসের মাংসের মধ্যে ফ্যাটি অ্যা’সিড যথেষ্ট পরিমাণে থাকে। তাই হাঁসের মাংস নিয়মিত খেলে স্বাভাবিকভাবেই দ্রুত ওজন বাড়ে। তাছাড়া শরীরের তাপমাত্রা উষ্ণ রাখতেও সাহায্য করে এই ফ্যাটি অ্যা’সিড।

এ ছাড়া হাঁসের মাংসে উচ্চখনিজ পদার্থ থাকায় গলাব্য’থা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। তবে যাদের উচ্চর’ক্ত চাপের সমস্যা আছে, তাদের হাঁসের মাংস না খাওয়াই ভালো। আর খেলেও অল্প পরিমাণে। কারণ এতে র’ক্তচাপ বেড়ে যেতে পারে।

সূত্র: পুষ্টি ইনস্টিটিউিট, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়