ছোট বোনের হয়ে পরীক্ষা দিতে গিয়ে বড় বোন কা’রাগারে

ময়মনসিংহের নান্দাইলের একটি কেন্দ্রে ছোট বোনের হয়ে চলতি এসএসসি পরীক্ষা দিতে গিয়ে ধরা খেয়েছেন বড় বোন। আজ রবিবার সকাল ১১টার দিকে উপজেলার খুররম খান চৌধুরী কলেজ কেন্দ্রে তাকে আ’টক করা হয়েছে। পরে তাকে ভ্রা’ম্যমা’ণ আদা’লত বসিয়ে এক বছরের বিনা’শ্রম কারাদ’ণ্ড ও ৫০০ টাকা জরিমা’না করা হয়।

আ’টক ভু’য়া পরীক্ষার্থীর নাম মোছাম্মৎ সাবিনা ইয়াসমিন (২১)। তিনি ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলার মগটুলা ইউনিয়নের দুর্গাপুর গ্রামের মো. আব্দুল হেলিমের মেয়ে। সাবিনা ঈশ্বরগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের অনার্স দ্বিতীয় বর্সের ছাত্রী। অভিযু’ক্ত সাবিনা জানান, ছোট বোন হঠাৎ অসু’স্থ হয়ে যাওয়ায় ছোট বোনের হয়ে পরীক্ষা দিতে এসেছিলেন।

নান্দাইল উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মাহমুদা আক্তার জানান, এসএসসি ইংরেজি দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষায় খুররম খান চৌধুরী কলেজ কেন্দ্রের ১০৯ নাম্বার কক্ষে নিজের ছোট বোন নাসরীন জাহান সোনিয়ার হয়ে অংশ নেন তিনি। পরীক্ষা কেন্দ্রের কক্ষ পরিদর্শক খাতা স্বাক্ষরের সময় বুঝতে পেরে তাকে আ’টক করেন।

পরে আ’টকৃত সাবিনাকে নিয়ে যাওয়া হয় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে। সেখানে ভ্রা’ম্যমাণ আদা’লত বসিয়ে তাকে সাজা দেওয়া হয়। নান্দাইল থা’নার উপপরিদর্শক মো. লিটন মিয়া জানান, সাজা পরোয়ানা পাওয়ার পর সাবিনাকে কা’রাগারে পাঠানো হয়েছে।-কালের কণ্ঠ অনলাইন।