করোনা ভা’ইরাস পরীক্ষা করাতে হাসপাতালে চীনা প্রেসিডেন্ট!

চীনের উহানে করোনা ভা’ইরাস শনা’ক্তের পর হঠাৎ করেই অদৃ’শ্য হয়ে যান দেশটির প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং। তাকে কোথাও যেন কেউ খুঁজে পাচ্ছিলো না। এর মধ্যে হঠাৎ করেই স্থানীয় এক হাসপাতালে স্বা’স্থ্য পরীক্ষা করা অব’স্থায় দেখা গেলো তাকে। এ সংক্রা’ন্ত ছবি এখন সামাজিক মাধ্যমে আলোচিত হচ্ছে। আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে,

সোমবার (১০ ফেব্রুয়ারি) বেইজিংয়ের চেংইয়ং জেলায় করোনা ভা’ইরাস আ’ক্রান্ত রো’গীদের চি’কিৎসায় তৈরি বিশেষ হাসপাতালে যান জিনপিং। ভা’ইরাস প্রতি’রোধী মা’স্ক ও শরীরে কালো রংয়ের জ্যাকেটে মোড়ানো জিনপিংকে এসময় এক স্বা’স্থ্যকর্মী হ্যান্ডহে’ল্ড থার্মোমি’টার দিয়ে পরীক্ষা করছেন। যার মাধ্যমে ফের সামনে এলেন চীনা প্রেসিডেন্ট।

গত বেশ কয়েকদিন ধরে খবরের শিরোনামে নেই শি জিনপিং। প্রা’ণঘা’তী করোনা ভাই’রাসে বিপ’র্যস্ত দেশের প্রেসিডেন্টের এ সময়ে যেখানে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেওয়ার কথা, সে সময় তার হঠাৎ নিরু’দ্দেশ সবার মনে প্রশ্নের জন্ম দিয়েছে। তবে এদিন তার সামনে আসার মাধ্যমে কোনো উত্তর পাওয়া গেলো কিনা তা কিন্তু পরিষ্কা’র নয়।

শেষ খবর পর্যন্ত করোনা ভাই’রাসে চীনে মৃ’তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯০৮-এ। এ রো’গে আ’ক্রান্ত হয়েছেন আরও ৪০ হাজার ১৭১ জন। চীনের বাইরে বিশ্বের আরো অ’ন্তত ২৮টি দেশ ভাই’রাসটি ছড়িয়ে পড়েছে। যাতে তিন শতাধিক মানুষ আ’ক্রান্ত রয়েছেন।

ভাই’রাসটিতে চীনের বাইরে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ আক্রা’ন্ত হয়েছেন জাপানিরা। দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১৬২ জন এ রো’গে আ’ক্রান্ত হয়েছেন। যার মধ্যে ১৩৬ জন ইয়োকোহামা বন্দরে যাত্রীবাহী জাহাজে আইসোলেশনে রয়েছেন। এরপর যথাক্রমে সিঙ্গাপুর, হংকংয়ে ৪৩ জন ও ৩৬ জন আ’ক্রান্ত হয়ে চিকিৎ’সাধীন।

সূত্র: বাংলানিউজ২৪