ফেসবুক অথবা ফোনে জানালেই বাড়ি বাড়ি খাবার পৌঁছে দেবে র‍্যাব

ফেসবুকে, টেলিফোনে অথবা মোবাইলে খাবারসহ নিত্যপণ্য চেয়ে যোগাযোগ করলেই ঘরে ঘরে তা পৌঁছে দিচ্ছে র‌্যাব। বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাই’রাসের মধ্যে নিরাপত্তা ও সচেতনতা বৃদ্ধির পাশাপাশি এই মানবিক কাজটিও করছে বাহিনীটি। পাশাপাশি ঢাকায় ঢুকতে ও বের হতে বাধা দিচ্ছে র‌্যাব। বসানো হয়েছে চেকপোস্ট। অহেতুক ঘোরাঘুরি বন্ধে করোনার ভ’য়াবহতা সম্পর্কে ব্রিফ করে মানুষজনকে বাড়িত পাঠিয়ে দিচ্ছেন বাহিনীর সদস্যরা।

রবিবার (৫ এপ্রিল) দুপুর থেকে বিকেল অবধি করোনাভাই’রাসের (কোভিড-১৯) বিস্তাররোধে কর্মকা’ণ্ডের অংশ হিসেবে র‌্যাব-৪ এর সদস্যরা রাজধানীর টেকনিক্যাল, গাবতলী, ঢাকা জেলাধীন আমিনবাজার, হেমায়েতপুর, সাভার, ব্যাংক টাউন, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় গেট, নবীনগর বাসস্ট্যান্ডসহ বিভিন্ন এলাকায় গৃহবন্দি দুই শতাধিক দরিদ্র, অসহায় পরিবারের মাঝে খাদ্যসামগ্রী ও অন্যান্য আনুসাঙ্গিক দ্রব্য বিতরণ করেন। এতে উপস্থিত ছিলেন র‌্যাব-৪ এর অধিনায়ক অতিরিক্ত ডিআইজি মো. মোজাম্মেল হক।

র‌্যাব-৪ এর সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) মোহাম্মদ সাজেদুল ইসলাম সজল বলেন, ঢাকায় ঢুকতে ঢাকা থেকে বাইরে যাওয়া বন্ধে বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। সেটি বাস্তবায়নে ঢাকায় প্রবেশ পথগুলোতে বসানো হয়েছে চেকপোস্ট এবং বিনাকারণে ঘুরে বেড়ানো লোকজনকে বাইরে আসার কারণ জিজ্ঞাসাবাদ ঘরে ফেরত পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

এছাড়া র‌্যাব-৪ এর আওতাধীন এলাকায় মাইকিং করে জনসচেতনতা বৃদ্ধি, করোনাভাই’রাস প্রতিরোধে করণীয় সম্পর্কে ও সামাজিক দূরত্ব বজায় নিশ্চিত করতে আহ্বান করা হচ্ছে। রোগের ভ’য়াবহতা ও লক্ষণ উল্লেখপূর্বক বিভিন্ন এলাকায় ব্যানার, ফেস্টুন টানিয়ে করোনাভাই’রাস প্রতিরোধ সম্পর্কে জনসাধারাণকে সচেতন করা হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন গত ২৬ মার্চ হতে চলমান সাধারণ ছুটিকালীন সময়ে জনগণের জান-মাল রক্ষা ও আই’নশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতিরোধে র‌্যাব-৪ বিভিন্ন টহল অব্যাহত রেখেছে। বাড়িতে থাকুন, আমরা র‌্যাব-৪ আছি আপনার নিরাপত্তায় স্লো’গানকে সামনে রেখে সরকার ও অন্যান্য সংস্থার সঙ্গে সমন্বয় রেখে র‌্যাব-৪ এর আওতাধীন বিভিন্ন এলাকায় প্রতিদিন শতাধিক দরিদ্র দিনমজুর, খেটে খাওয়া শ্রমজীবী, গৃহবন্দি অসহায় পরিবারকে খাদ্যসামগ্রী ও অন্যান্য আনুসাঙ্গিক দ্রব্য বিতরণ অব্যাহত রয়েছে।

র‌্যাব-৪ এর অধিনায়ক অতিরিক্ত ডিআইজি মোহাম্মদ মোজাম্মেল হক বলেন, ফোনের মাধ্যমে ও র‌্যাব-৪ এর ফেসবুক পেজের মাধ্যমে যারা খাদ্যসামগ্রী ও নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের জন্য অনুরোধ করেন, তাদের বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে তা পৌঁছে দেয়া হচ্ছে। প্রতিদিন র‌্যাব-৪ এর এই জনহিতকর কার্যক্রমের পাশাপাশি সচেতনতা ও নিরাপত্তামূলক কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে, ইনশাআল্লাহ।