ভ্যাকসিন হতে হবে সব মানুষ ও মানবতার জন্য : এরদোগান

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়িপ এরদোগান বিশ্ব নেতাদের সঙ্গে এক ভি’ডিও কনফারেন্সে বলেছেন, করোনা ঠেকানোর যেকোনো ভ্যাকসিন তৈরি করা উচিত মানবতার জন্য। সারা বিশ্বের সকল মানুষের সম্পত্তি হওয়া উচিত করোনার ভ্যাকসিন। সোমবার করোনার ভ্যাকসিন তৈরি ও চিকিৎসার জন্য জন্য আট দশমিক দুই বিলিয়ন ডলারের আন্তর্জাতিক তহবিল বৃদ্ধি করতে এই ভিডিও কনফারেন্সের আয়োজন করা হয়।

ইউরোপীয় ইউনিয়ন আয়োজিত অনলাইন করোনাভাইরাস গ্লোবাল রেসপন্স সামিটে এরদোগান বলেন, একটি কভিড-১৯ রোগের ভ্যাকসিন অবশ্যই সমস্ত মানবজাতির অংশীদারম‚লক সম্পত্তি হতে হবে।

যারা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন তাদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন তিনি। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যিপ এরদোগান সোমবার এক বিবৃতিতে জানান যে তার দেশ করোনাভাইরাস মোকাবেলায় সফল হয়েছে। প্রায় দেড় মাস মহামারীর আতঙ্কে থাকা তুর্কিরা এখন থেকে ধাপে ধাপে স্বাভাবিক জীবন যাত্রায় ফিরে যেতে পারবেন বলেও ঘোষণা দেন তিনি।

তার মতে, তুরস্ক করোনা মোকাবেলায় চারটি বিষয়ে অধিক গুরুত্ব দিয়েছে। সেগুলো হল, শারীরিক দ‚রত্ব বজায় রাখা, করোনাক্রান্ত রোগীর অতিরিক্ত চাপে স্বাস্থ্য ব্যবস্থাকে ধসে পড়ার হাত থেকে সুরক্ষা দেয়া, নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের উৎপাদন ও সরবরাহ চালু রাখা এবং সারা দেশে আইনশৃঙ্খলা রক্ষা করা।

নিরপেক্ষ বিশ্লেষণে বলা যায় যে তুরস্ক করোনা পরিস্থিতি প্রায় নিয়ন্ত্রণে নিয়ে এসেছে, যদি না দ্বিতীয় দফায় এই সংক্রমণ শুরু হয়। তুরস্কের এই সফলতার পিছনে অনেকগুলো বিষয় কাজ করছে।

তবে সবচেয়ে গুরুত্বপ‚র্ণ বিষয় হচ্ছে নেতৃত্ব। সঠিক নেতৃত্ব দেশ পরিচালনায় যত গুরুত্বপ‚র্ণ তার চেয়েও বেশি গুরুত্বপ‚র্ণ হল সংকটকালে সঠিক সিদ্ধান্ত গ্রহণের সৎ সাহস এবং দ‚রদর্শিতা। তুরস্কের বর্তমানে সবচেয়ে প্রিয় ও বিশ্বস্ত ব্যক্তি স্বাস্থ্যমন্ত্রী ফাহরেত্তিন খোজা।

শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ৫৫ বছর বয়সী এই চিকিৎসক ২০১৮ সালে মন্ত্রীত্ব পাওয়ার আগে প্রতিষ্ঠা করেছেন ইস্তাম্বুল মেডিপোল (মেডিক্যাল)বিশ্ববিদ্যালয়, সভাপতিত্ব করেছেন শিক্ষা স্বাস্থ্য ও গবেষণা ফাউন্ডেশন, বেসরকারি হাসপাতাল স্বাস্থ্য সংস্থা সমিতিসহ আরও অনেক স্বাস্থ্য সংশ্লিষ্ট সংস্থার।

১০ জানুয়ারি তুরস্কে প্রথম করোনা রোগী শনাক্তের ঠিক তিন মাস আগে এই মন্ত্রীর সভাপতিত্বে গঠন করা হয় ‘করোনাভাইরাস বৈজ্ঞানিক পরামর্শ বোর্ড’। প্রায় ৪০ জন প্রফেসর এবং স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের নিয়ে গঠিত এই বোর্ডকে দেয়া হয় সর্বময় ক্ষমতা। এমনকি সরকার দেশ চালাতে গুরুত্বপ‚র্ণ সিদ্ধান্তগুলো নেয় এই বোর্ডের পরামর্শ অনুযায়ী।

দেশে করোনা ধরা পড়ার অনেক আগে থেকেই স্বাস্থ্যমন্ত্রী এই বোর্ডের পরামর্শ অনুযায়ী প্রায় প্রতিদিন গণমাধ্যমের সামনে এসে এই বৈশ্বিক মহামারী নিয়ে তথ্য দেন, সরকারের নেয়া পদক্ষেপগুলোর বিবরণ দেন এবং মানুষকে এই ভাইরাস সম্পর্কে সতর্ক করতে থাকেন। আনাদোলু।