গণস্বাস্থ্যের কিট: নতুন মোড় নিলেন জাফরুল্লাহ

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের তৈরি করোনা শনাক্ত কিট ঘিরে একের পর এক নাটকীয় ঘটনা ঘটেই চলেছে। সরকার এখনো এই কিট ব্যবহারের অনুমতি দেয় নি। এমতাবস্থায় সোমবার (১১ মে) প্রতিষ্ঠানটির প্রধান ডাঃ জাফরুল্লাহ সরকারের কাছে কিট ব্যবহারের সাময়িক সনদপত্র চাইলেন। এ সনদপত্র পেলে এই কিট আপাতত ব্যবহার করা যাবে।

জাফরুল্লাহ বলেন, স্থায়ী অনুমতি না দেয়া হলেও পরিস্থিতি সামাল দেয়ার খাতিরে সাময়িকভাবে গণস্বাস্থ্যের কিট ব্যবহারের অনুমতি দেয়া উচিত। সাময়িক সনদ পেলে আপাতত কিটটি ব্যবহার করা যাবে। গত ১৭ই মার্চ করোনাভাইরাসে আক্রান্তদের পরীক্ষার জন্য প্রাতিষ্ঠানিক গবেষণায় কিট উৎপাদনের কথা জানায় গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র। ১৯ মার্চ কিট উৎপাদনের সরকারি অনুমোদন পায় প্রতিষ্ঠানটি। করোনাভাইরাস শনাক্তকরণের ‘জিআর র‌্যাপিড ডট বট ইমিউনোঅ্যাসি’ কিট তৈরির জন্য গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের গবেষক দলের নেতৃত্ব দেন ড. বিজন কুমার শীল।

গবেষক দলের অন্যদের মাঝে আছেন ড. নিহাদ আদনান, ড. মোহাম্মদ রাঈদ জমিরউদ্দিন, ড. ফিরোজ আহমেদ ও সিঙ্গাপুরের একজন গবেষক। ৫ই এপ্রিল চীন থেকে কিট তৈরির কাঁচামাল আমদানি করে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র।