হাসপাতালে ভর্তি ৮৪ বছর বয়সী সৌদি বাদশা

সৌদি আরবের বাদশা সালমান বিন আব্দুল আাজিজকে রাজধানী রিয়াদের একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ৮৪ বছর বয়সী বাদশা গলব্লাডারের সমস্যা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন বলে সেখানকার স্থানীয় গণমাধ্যম এসপিএ জানিয়েছে। ২০১৫ সাল থেকে বিশ্বের সবচেয়ে বড় তেল রপ্তানিকারী দেশটি পরিচালনা করছেন বাদশা সালমান। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের বড় মিত্রও। তার মেডিকেল চেক আপ চলছে বলে জানিয়েছে সংবাদ সংস্থাটি। তবে আর কোনো বিস্তারিত প্রকাশ করেনি।

এই খবরের পরে, ইরাকি প্রধানমন্ত্রী মোস্তফা আল-কাদিমি সৌদি আরবে তার নির্ধারিত একটি সফর স্থগিত করেছেন বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী প্রিন্স ফয়সাল বিন ফারহান আল সৌদ। ইসলামের পবিত্রতম জায়গাগুলির প্রহরী বাদশা সালমান রাজা হওয়ার আগে জুন ২০১২ থেকে সৌদির যুবরাজ এবং ডেপুটি প্রিমিয়ার হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি ৫০ বছরেরও বেশি সময় ধরে রিয়াদ অঞ্চলের গভর্নর হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

তার পরে রাজসিংহাসনের উত্তরাধিকার হিসেবে আছেন যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান। তিনি রাজ্যের অর্থনীতি রূপান্তর করতে এবং তেলের প্রতি ‘আস’ক্তি’ নিয়ন্ত্রণ করতে সংস্কার কাজ শুরু করেছেন।

তরুণ সৌদিদের মধ্যে ব্যাপক জনপ্রিয় ৩৪ বছর বয়সী এই যুবরাজ রক্ষণশীল মুসলিম রাজ্যে সামাজিক নিষেধাজ্ঞাগুলি সহজ করার জন্য নারীদের প্রশংসা পেয়েছেন। তিনি নারীদের আরও বেশি অধিকার দিয়েছেন এবং অর্থনীতির বৈচিত্র্য আনার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

কয়েক দশকের সতর্কতা, স্থবিরতা এবং দূরত্বের পরে দেশে ও বিদেশে রাজার সমর্থকরা তার এসব সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছিল। তবে মিডিয়াতে রাষ্ট্রীয় নিয়ন্ত্রণ এবং রাজ্যে ভিন্নমত পোষণকারীদের অবদমনের কারণে আভ্যন্তরীন উদ্যম স্তিমিত হয়ে পড়ে।

২০১৮ সালে সাংবাদিক জামাল খাশোগির হত্যাকাণ্ডের পরেও তার সম্মানে কিছুটা ভাটা নেমে আসে।

সূত্র: চ্যানেল আই অনলাইন