পলাতক সেই আসা’মি ধরা খেয়ে বললো ‘আমি চা খেতে গিয়েছিলাম’

সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগা’রের পলাতক কয়েদি মিন্টু মিয়াকে বাবুবাজার ব্রিজ এলাকা থেকে গ্রে’ফতার করা হয়েছে। এ সময় কারার’ক্ষীদের জিজ্ঞাসাবাদে মিন্টু জানায়, কারারক্ষীরা ঘুমাচ্ছিলো, তাই আমি চা খাইতে বের হয়েছিলাম। এদিকে এ ঘটনায় দায়িত্বরত প্রধান কারার’ক্ষীসহ দুইজনকে সাময়িক বরখা’স্ত করেছে কারা কর্তৃপক্ষ।

শনিবার দুপুরে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারা’গারের সিনিয়র জেল সুপার ইকবাল কবীর চৌধুরী এ তথ্য নিশ্চিত করেন। এর আগে টাঙ্গাইল কারাগারের বন্দি মিন্টু অসুস্থ হয়ে পড়লে গত ১২ আগস্ট ঢাকা মেডিকেলে ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে কিছুটা সুস্থ হলে তাকে কেরানীগঞ্জের ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগা’রে নিয়ে যাওয়া হয়।

ঢাকা কেন্দ্রীয় কারা’গারে গতকাল ‍শুক্রবার তার শরীর ফের খারাপ হওয়ায় ওই দিনই রাজধানীর সলিমুল্লাহ মেডিকেল হাসপাতাল ভর্তি করা হয়। রাতের বেলা সে কৌশলে পালিয়ে যায়। আসা’মি মিন্টু মা’দক মাম’লার আসা’মি। তিনি শ্বা’সক’ষ্ট, বুকে ব্য’থাসহ নানা অসুখে ভুগ’ছেন। এ বিষয়ে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারা’গারের জেলার মাহবুবুল ইসলাম জানান, দুপুরে আমরা ওই আসা’মিকে ধরতে সক্ষ’ম হয়েছি। এখন তাকে কেন্দ্রীয় কারা’গারে পাঠানো হয়েছে।

এর আগে, সলিমুল্লাহ মেডিকেল হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল কাজী মো. রাশীদ উন নবী জানান, হাসপাতালে দুই নম্বর ভবন মেডিসিন বিভাগের ছয়তলায় কারার’ক্ষীদের পাহারায় ওই আসা’মি চি’কিৎসাধীন ছিলেন। তিনি শ্বা’সক’ষ্টজনিত রো’গে আক্রা’ন্ত ছিলেন। পালিয়ে যাওয়ার দৃশ্য সিসি ক্যামেরায় দেখা যায়নি।-ডেইলি বাংলাদেশ