তুরস্কের ৯৮তম বিজয় দিবস উদযাপন

তুরস্কের ৯৮তম বিজয় দিবস উপলক্ষে রোববার দেয়া এক বক্তব্যে দেশটির প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান বলেন, তুরস্ক বিশেষত কোনো হুম’কি-ধম’কিতে মাথা নত করবে না। বরং আন্তর্জাতিক আ’ইন ও দ্বিপক্ষীয় চুক্তির আলোকে নিজেদের অধিকার সংর’ক্ষণ করবে। ১৯২২ সালের ৩০ আগস্ট গ্রীক সেনাবাহিনী ও মিত্র বাহিনীকে চূড়ান্তভাবে পরা’জিত করেছিল তুরস্কের সেনাবাহিনী।

বিজয় দিবস উপলক্ষে আধুনিক তুরস্কের জনক কামাল আতাতুর্কে সমাধিতে পুষ্পস্তবক অ’র্পণ করেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট এর’দোগানসহ সরকারের অন্যান্য উচ্চপ’দস্থ কর্মকর্তারা। তিনি বলেন, আমরা ২০২৩ সালে আমাদের বিজয়ের শততম বর্ষ পালন করব। আমরা দৃঢ় প্রতিজ্ঞাব’দ্ধ যে তখন আমাদের দেশ অর্থনীতি, সেনাবাহিনী, রাজনীতি ও কূট’নৈতিক ক্ষেত্রে আরো সফলতা বয়ে আনবে।

এদিকে গ্রিসের আইওনিয়ান সাগরের পানিসীমা বাড়ানো ঘোষণায় তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত চাভুসওগ্লু বলেছেন, গ্রিস আইওনিয়ান সাগরের পানিসীমা বাড়ানোর যে পরিকল্পনা করছে তাতে যু’দ্ধ শুরু হতে পারে। তিনি বলেন, ওই সাগরে গ্রিসের পানিসীমা ৬ নটিক্যাল মাইল থেকে বাড়িয়ে ১২ নটিক্যাল মাইল করা হলে তা দুই দেশের মধ্যে যু’দ্ধ ডেকে আনতে পারে।

গত শনিবার তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী গ্রিসকে সতর্ক করে বলেন, গ্রিস পানিসীমা বাড়িয়ে ১২ মাইল করতে পারে না। ভূমধ্যসাগরে তেল-গ্যাস অনুসন্ধান নিয়ে সম্প্রতি গ্রিস ও তুরস্কের সঙ্গে উত্তে’জনা বেড়েছে। এর মধ্যেই অ্যা’থেন্সের এমন পদক্ষেপ নতুন করে উ’ত্তেজনা বাড়িয়েছে।

গ্রিসের একটি পত্রিকায় সেদেশের প্রধানমন্ত্রী ক্রিয়াকোস মিতসোটাকিসের উদ্ধৃতি দিয়ে বলা হয়, গ্রিস সরকার আইওনিয়ান সাগরে ইতালির মুখোমুখি আঞ্চলিক জলসীমা দ্বি’গুণ করার একটি বিল জমা দেওয়ার পরিকল্পনা করছে। ভবিষ্যতে অন্যান্য সামুদ্রিক এলাকায় গ্রিস তার আঞ্চলিক জলসীমা বাড়াবে।-আনাদোলু এজেন্সি