‘আল্লাহ শ্রেষ্ঠ পরিকল্পনাকারী’- বললেন ম্যাচ ও সিরিজ সেরা হাফিজ

অনেক বিত’র্কের পর ইংল্যান্ড সফরের পাকিস্তান দলে যোগ দেন মোহাম্মদ হাাফিজ। তবে সব বিত’র্ককে ছাপিয়ে ৩৯ বছর বয়সেও দু’র্দান্ত ব্যাটিংয়ে সবার মন কেড়েছেন অভিজ্ঞ এই অলরাউন্ডার। তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম ম্যাচ বৃষ্টিতে পরিত্য’ক্ত হওয়ায় মাঠে নামা হয়নি হাফিজের৷ তবে পরের দুই ম্যাচে দুই ফিফটিতে সিরিজ সেরা পুরস্কার জিতে নিয়েছেন তিনি। শেষ ম্যাচটিতে জিতেছেন ম্যাচ সেরার পুরস্কারও৷

নিজেকে ফিরে পেয়ে ম্যাচ ও সিরিজ সেরার পুরস্কার জেতায় হাফিজ পুরো কৃতিত্ব দিয়েছেন সৃষ্টিকর্তাকে। দুই পুরস্কার হাতে নিয়ে টুইটারে ছবি আপলোড করেছেন হাফিজ। যার ক্যাপশনে সৃষ্টিকর্তাকে কৃত’জ্ঞতা দিয়ে হাফিজ লিখেছেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ, আল্লাহ শ্রেষ্ঠ পরিকল্পনাকারী।’

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টিতে ব্যাট করারই সুযোগ হয়নি ম্যাচ বৃষ্টিতে ভেসে যাওয়ায়। দ্বিতীয় ম্যাচে হাফিজ খেলেছিলেন ৩৬ বলে ৬৯ রানের ইনিংস। মঙ্গলবার তৃতীয় ও শেষ ম্যাচে ছোট ফরম্যাটে ক্যারিয়ার সেরা অপরা’জিত ৮৬ রান করেছেন ৩৯ বছর বয়সী ডানহাতি ব্যাটার। ৫২ বলে ৪ চার ও ৬ ছক্কায় সাজান এদিনের ইনিংসটি।

হাফিজ ছাড়াও অভি’ষিক্ত হায়দার আলি খেলেছেন ৫৪ রানের ইনিংস। এই দুইয়ের ব্যাটে ইংল্যান্ডকে ১৯১ রানের লক্ষ্য দিয়েছে সফরকারী পাকিস্তান। ইংলিশরা শেষ পর্যন্ত ম্যাচটি পাঁচ রানে হেরে যায়। আগের ম্যাচে অবশ্য ১৯৫ রান করেও হেরেছিল ববর আজমের দল।

তিন ম্যাচের টেস্ট ও সমান সংখ্যক টি-টোয়েন্টি খেলতে ইংল্যান্ডে পাড়ি দেওয়ার আগে হাফিজকে নিয়ে বিতর্ক হয়েছে অনেক। তার ক’রোনা পরীক্ষা নিয়ে বেশ নাটক হয়। বোর্ডের ব্যবস্থাপনায় কভিড-১৯ পজিটিভ হওয়ার পর নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় করানো পরীক্ষায় নেগেটিভ হন তিনি।

কিন্তু বোর্ডকে না জানিয়ে নিজ ব্যবস্থাপনার ক’রানো পরীক্ষার ফল প্রকাশ করে বোর্ডের রোষানলে পড়েন হাফিজ। ইংল্যান্ডে আসার পরও স্বাস্থ্য বিধি ভে’ঙে বি’তর্কে জড়িয়েছিলেন। টেস্ট থেকে আগেই অবসর নিয়েছেন। তাই সাদা পোশাকে ছিলেন না। অনেক জল ঘোলা করে ইংল্যান্ডে আসা হাফিজ টি-টোয়েন্টিতে কেমন করেন সেটি ছিল দেখার।

তাছাড়া এখনো টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলার স্বপ্নের কথা বলেন তিনি। হাফিজ অবশ্য দুই ম্যাচেই প্রমাণ করলেন, বয়স হলেও তার ব্যাট এখনো সচল।