রেকর্ড গড়া প্রথম গোলটি যাকে উৎসর্গ করলেন বিস্ময়কর ফুটবলার ফাতি

উয়েফা ন্যাশন কাপের গতরাতের ম্যাচে ইউক্রেনের বিপক্ষে দারুণ জয় পেয়েছে স্পেন। ৪-০ গোলের এই দুর্দান্ত জয়ের ম্যাচে একটি গোল করেছিলেন তরুণ তারকা আনসু ফাতি।স্পেনের এই তরুণ তারকা প্রথম গোলের মাধ্যমে গড়েছেন রেকর্ড। স্পেনের ইতিহাসে সবচেয়ে কম বয়সী ফুটবলার হিসেবে গোলের রেকর্ড গড়েন ফাতি।

আনসু ফাতি তার এই রেকর্ড গড়া গোলটি ভাইকে উৎসর্গ করেন। তার ভাইয়ের জন্মদিন উপলক্ষে গোলটি উৎসর্গ করেন তিনি। ম্যাচ শেষে আনসু ফাতি বলেন, “এটা ছিল আমার ভাইয়ের জন্য। এটা ছিল তার জন্মদিনের জন্য, আমি যখন স্পেন দলে ডাক পাই তখনই বুঝতে পেরেছিলাম আমার তার জন্মদিনে যাওয়া হবে না। সে আমাকে বলেছিল যদি গোল পাই তাহলে তাকে উৎসর্গ করার জন্য।”

মাঠে নামলেই রেকর্ড গড়ে বসছেন বার্সেলোনার বিস্ময় বালক আনসু ফাতি। জন্ম আফ্রিকান দেশ গিনি বিসাউতে। কিন্তু মা-বাবার সঙ্গে ছোটবেলা থেকেই বড় হয়েছে স্পেনে। বিস্ময়কর ফুটবল প্রতিভা। যে কারণে, খুব অল্প বয়সেই জায়গা করে নিয়েছেন বিশ্বের অন্যতম সেরা ক্লাব বার্সেলোনায়। মাত্র ১৬ বছর বয়সেই অভিষেক ঘটে তার স্প্যানিশ লা লিগা, উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে।

শুধু তাই নয়, বার্সায় অভিষিক্ত হওয়ার পরই আনসু ফাতিকে নাগরিকত্ব দিয়ে ফেলেছে স্পেন। যদিও করোনার কারণে স্পেনের জার্সি গায়ে দিতে বেশ বিলম্বই হয়েছে তার। অবশেষে গত সপ্তাহে জার্মানির বিপক্ষে উয়েফা নেশন্স কাপে স্পেন জাতীয় দলের হয়ে অভিষেক হলো আনসু ফাতির। স্পেনের জার্সি গায়ে দিয়েই ৮৪ বছরের রেকর্ড ভেঙেছিলেন বার্সার এই তরুণ ফুটবলার।

জার্মানির বিপক্ষে অভিষেক হলেও গোলের দেখা পাননি। তবে গোলের দেখা পেতে খুব বেশি অপেক্ষা করতে হয়নি ফাতিকে। রোববার রাতেই ইউক্রেনের বিপক্ষে গোল করলেন তিনি। একই সঙ্গে ভেঙ্গে দিলেন ৯৫ বছরের বিরল এক ইতিহাস। জার্মানির বিপক্ষে মাঠে নেমেই রেকর্ডটা গড়েছিলেন তিনি। ৮৪ বছরের মধ্যে স্পেনের হয়ে সবচেয়ে কম বয়সী ফুটবলার হিসেবে মাঠে নামেন তিনি। সব মিলিয়ে স্পেনের হয়ে মাঠে নামা দ্বিতীয় সর্বকনিষ্ট ফুটবলার ছিলেন ফাতি।