ডিন জোনসকে বাঁচানোর জন্য হোটেলেই শেষ চেষ্টা করেছিলেন ব্রেট লি

শেষ চেষ্টা করেছিলেন তিনি। কিন্তু পারেননি। ডিন জোনসের সঙ্গে ব্রেকফাস্ট টেবিলেও ছিলেন তিনি। তার পরই এমন মারা’ত্মক ঘটনা ঘটল। অস্ট্রেলিয়ার প্রাক্তন পেসার ব্রেট লির কথাগুলো বলতে গিয়ে গলা ধরে আসছিল। ধারাভাষ্যকারদের দলে বেশ জনপ্রিয় ছিলেন ডিন জোনস। এভাবে হঠাত্ করে তিনি দলছুট হওয়ায় মন খারাপ সবার। ক্রিকেট বিশ্লেষক হিসাবে জনপ্রিয় হয়েছিলেন ডিন।

ঠিক যেমন ক্রিকেটার হিসাবে জনপ্রিয় ছিলেন। সোজাসাপটা কথা বলতে পারতেন। ভাল হলে ভাল, খারাপকে খারাপ বলার সাহস রাখতেন। তাঁর অসাধারণ ম্যাচ রিডিং ক্ষমতাও সতীর্থদের অনেক সময় অবাক করে দিত। আইপিএলের সম্প্রচারক চ্যানেলের হয়ে ধারাভাষ্য দেওয়ার জন্য ব্রেট লি, ডিন জোনসরা মু্ম্বইতে একটি পাঁচ তারা হোটেলে ছিলেন। এবার করোনার জন্য মাঠ থেকে কমেন্ট্রি করার সুযোগ নেই। এবার কমেন্টেটর-দের ভার্চুয়ালি কাজ করতে হচ্ছে। যা কি না নতুন এক অভিজ্ঞতা।

সবাই মিলে হইহুল্লোড়ের মধ্যেই কাজ করছিলেন। কিন্তু হঠাত্ এই ছন্দপতন। দলের অন্যতম সদস্য সবাইকে ছেড়ে চলে গেলেন। বৃহস্পতিবার ব্রেকফাস্ট টেবিল থেকে ওঠার পরই অস্বস্তি বোধ করেন ডিন জোনস। এর পরই লুটিয়ে পড়েন তিনি। ঘটনাস্থল থাকা ব্রেট লি সিপিআর প্রক্রিয়ার মাধ্যমে ডিন জোনসকে বাঁচানার শেষ চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু পারেননি। চিকিত্সকরা জানিয়েছেন, ভয়া’নক স্ট্রো’ক হয়েছিল প্রাক্তন অজি তারকার। আর তাতেই তিনি মৃ’ত্যুর কোলে ঢলে পড়েন।

অস্ট্রেলিয়ার জার্সিতে ৫২টি টেস্ট খেলে ৩৬৩১ রান করেছেন ডিন। ৪৬.৫৫ গড়ে। ১৯৮৪ সালে ওয়েস্ট ইনডিজের বিরু’দ্ধে তাঁর টেস্ট অভিষেক হয়েছিল। টেস্টে জোনসের নামের পাশে রয়েছে ১১টি সেঞ্চুরি। একদিনের ক্রিকেটের দারুণ রেকর্ড রয়েছে জোনসের। ওয়ানডে ক্রিকেটে ৬০৬৮ রান করেছেন তিনি। সাতটি সেঞ্চুরি ও ৪৬টি হাফ সেঞ্চুরি করেছিলেন তিনি।