নতুন ক্লাবে অভিষেকেই জোড়া গোল করলেন সুয়ারেজ

স্প্যানিশ ফুটবলে লুইস সুয়ারেজের নতুন অধ্যায়ের শুরুটা হলো দারুণ। অনেক আলোচনার পর বার্সেলোনা থেকে আতলেতিকো মাদ্রিদে পাড়ি দিয়েছেন উরুগুইয়ান তারকা। নতুন ক্লাবের হয়ে অভিষেকেই যিনি করলেন জোড়া গোল।

রবিবার লা লিগায় গ্রানাদার বিপক্ষে ম্যাচের ৬৯ মিনিটে দিয়েগো কস্তার বদলি হিসেবে মাঠে নামেন সুয়ারেজ। অতিরিক্ত সময় মিলে মোট ২৫ মিনিট খেলেই পেয়েছেন জোড়া গোল। পেনাল্টির সিদ্ধান্ত দিয়েও রেফারি ভিএআরে সেটি বাতিল না করলে হয়তো স্পট কিক থেকে গোল করে হ্যাট’ট্রিকও পেতে পারতেন বার্সেলোনায় ৬ মৌসুম খেলা সুয়ারেজ।

৩৩ বছর বয়সী তারকার এমন রঙিন অভিষেকের দিনে আতলেতিকো জিতেছে ৬-১ গোলের বড় ব্যবধানে। সুয়ারেজ মাঠে নামার আগে দিয়েগো সিমেওনের দল এগিয়ে ছিল ৩-০ গোলে। সুয়ারেজ মাঠে নামার পর পেয়েছে আরো তিন গোল।

সুয়ারেজ গোলের জন্য মুখিয়ে ছিলেন শুরু থেকেই। দারুণ সব সুযোগ তৈরি করছিলেন। ৮১ মিনিটে আতলেতিকোর পক্ষে পেনাল্টির বাঁশি বাজান রেফারি। স্পট কিক নিতে বল তুলে নেন সুয়ারেজ। তাকে ফেলে দেওয়াতেই ফাউলের বাঁশি বাজিয়েছিলেন রেফারি।

তবে গ্রানাদা খেলোয়াড়দের আপ’ত্তির মুখে ভিএআরের সাহায্য নেন রেফারি। যাতে দেখা যায় বল দখলের লড়াইয়ে সুয়ারেজের পায়ে বল আসার আগেই নিয়’ন্ত্রণে নেন গ্রানাদা খেলোয়াড়। বলের নিয়ন্ত্রণ নিতে গিয়ে অনি’চ্ছাকৃতভাবে সুয়ারেজের সাথে সংঘ’র্ষ হয়েছিল তার।

তবে এর তিন মিনিট পরই মার্কোস লরেন্তের ক্রসে দারুণ এক হেডে জাল খুঁজে নেন সুয়ারেজ। আলতেলিকো তাতে এগিয়ে যায় ৫-০ গোলে। ৮৭ মিনিটে গ্রানাদা ব্যবধান ৫-১ করে। যোগ করা সময়ে সুয়ারেজ আদায় করেন নিজের দ্বিতীয় ও দলের ষষ্ঠ গোল। প্রথম দফার শট পো’স্টে লেগে ফিরে এলে দ্বিতীয় প্রচেষ্টায় বা পায়ের শটে দেখার মতো গোল করেন সুয়ারেজ।

সুয়ারেজের জোড়া গোল ছাড়া আতলেতিকোর হয়ে অন্য গোলগুলো করেছেন দিয়েগো কস্তা, এঞ্জেল কোরেয়া, জোয়াও ফেলিক্স ও মার্কোস লরেন্ত।