রিফাত হ’ত্যায় মিন্নিসহ ছয়জনের মৃ’ত্যুদ’ণ্ড

ফাইল ছবি

বরগুনার আলোচিত শাহনেওয়াজ শরীফ ওরফে রিফাত শরীফ হ’ত্যা মা’মলায় প্রা’প্তবয়স্ক ১০ আ’সামির মধ্যে ছয়জনকে মৃ’ত্যুদ’ণ্ড দিয়েছে আদা’লত। বুধবার বরগুনা জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. আছাদুজ্জামান এ রায় ঘোষণা করেন। রায় ঘোষণাকে কেন্দ্র করে আদা’লত চত্বরে কঠোর নিরাপ’ত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়। এর আগে, সকাল ৯টায় বাবা মোজা‌ম্মেল হক কি‌শোরের সঙ্গে মিন্নি আদা’লত প্রাঙ্গণে আসেন। এরপর কারা’গার থেকে ৮ আসা’মিকে নেয়া হয় আদা’লতে।

২০১৯ সালের ২৬ জুন বরগুনা সরকারি কলেজের সামনে নয়ন বন্ড ও তার সহযোগী স’ন্ত্রা’সীরা প্রকাশ্যে রামদা দিয়ে কু’পিয়ে রিফাত শরীফকে গু’রুতর আ’হত করে। এরপর বীরদর্পে অ’স্ত্র উঁচিয়ে এলাকা ছাড়েন তারা। গু’রুতর আ’হত রিফাত বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ওইদিনই মা’রা যান।

ওই বছরের ১ সেপ্টেম্বর রিফাত শরীফ হ’ত্যা মাম’লায় রিফাতের স্ত্রী মিন্নিসহ ২৪ জনের বিরু’দ্ধে বরগুনার সিনিয়র জুডিশি’য়াল ম্যাজি’স্ট্রেট আদা’লতে চার্জশিট দেয় পুলিশ। একইসঙ্গে রিফাত হ’ত্যা মা’মলার এক নম্বর আসা’মি নয়ন বন্ড ব’ন্দুকযু’দ্ধে নি’হত হওয়ায় তাকে মাম’লা থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়।

চলতি বছরের ১ জানুয়ারি রিফাত হ’ত্যা মা’মলার প্রাপ্তবয়স্ক ১০ আ’সামির বিরু’দ্ধে চার্জ গঠন করে বরগুনার জেলা ও দায়রা জজ আদা’লত। ৮ জানুয়ারি একই মাম’লার অপ্রা’প্তবয়স্ক ১৪ আ’সামির বিরু’দ্ধে চার্জ গ’ঠন করে বরগুনার শিশু আদা’লত। এ মা’মলার চার্জশিটভুক্ত প্রা’প্তবয়স্ক আ’সামি মো. মুসা এখনো পলা’তক রয়েছেন।