কাজী সালাউদ্দিনই বাফুফে সভাপতি

বাফুফের নি’র্বাচনকে ঘিরে নাটকীয়তা চূড়ান্ত রূপ পেয়েছে। নি’র্বাচনের আগের রাতে নিজেকে সভাপতি প্রার্থী ঘোষণা করেন বাদল রায়। এর আগে শারী’রিক অসু’স্থতার কথা বলে, প্রার্থিতা বাতিলের দিন সময় পেরিয়ে যাওয়ার পর, নিজেকে সরিয়ে নিয়েছিলেন তিনি। নি’র্বাচনের আগের রাতে তাই সভাপতি হিসেবে নিজেকে ঘোষণা করার সুযোগ ছিল বাদল রায়ের। সেটিই কাজে লাগান তিনি। কোনো ধরণের প্রচা’রণা না চালিয়েও, শেষমুহূর্তে ফিরেই তিনি পেয়েছেন ৪০টি ভোট।

অন্যদিকে, কাজী সালাউদ্দিনের একমাত্র প্রতিদ্ব’ন্দ্বী হিসেবে এতদিন মাঠে ছিলেন জাতীয় ফুটবল দলের সাবেক অধিনায়ক এবং কোচ শফিকুল ইসলাম মানিক। প্রচার-প্রচারণায় বেশ ব্যস্ত সময় পার করেছেন তিনি। তবে শেষপর্যন্ত ভোটারদের মন গলাতে পারেননি মানিক। মাত্র ১টি ভোট পড়েছে তার ব্যালটে।

সর্বোচ্চ ভোট পেয়ে আরো একবার বাফুফের সভাপতি নির্বা’চিত হলেন কাজী সালাউদ্দিন। তিনি পেয়েছেন মোট ৯৪টি ভোট। এ নিয়ে টানা চতুর্থবার সভাপতি নির্বাচিত হলেন সাবেক এই ফুটবলার। শনিবার বিকেল ৩টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত চলে বাফুফের নি’র্বাচন। এবারের নির্বাচনে ২১টি পদে ১৩৯ জন কাউন্সিলরের মধ্যে ১৩৫জন ভোট দিয়েছেন।

কাজী সালাউদ্দিনের দীর্ঘদিনের সঙ্গী এবং আগের কমিটিরও সিনিয়র সহ সভাপতি আব্দুস সালাম মুর্শেদি এবারও বহাল রইলেন সিনিয়র সহ সভাপতি পদে। তিনি পেয়েছেন মোট ৯১টি ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্ব’ন্দ্বী শেখ মোহাম্মদ আসলাম পেয়েছেন ৪৪টি ভোট।

সূত্র: সময় নিউজ।