করোনায় শ’য্যাশয়ী ট্রাম্প, প্রচারণার মাঠে এখন কেবলই জো বাইডেন

করোনা ভাই’রাস নিয়ে অতি সত’র্কতার কারণে মাসের পর মাস মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প নির্বাচনে তার প্রতিদ্ব’ন্দ্বী জো বাইডেনকে বি’দ্রু’প করে আসছিলেন। কিন্তু নির্বাচনের আর অল্পদিন বাকি থাকতে ট্রাম্প করোনায় আ’ক্রা’ন্ত হওয়ায় প্রচা’রণার মাঠে এখন কেবল বাইডেনই থাকছেন।

তবে ট্রাম্পের করোনায় আ’ক্রা’ন্ত হওয়ায় তা হোয়াইট হাউসের দৌড়ে কতোটা প্রভা’ব ফেলবে এতো তা’ড়াতা’ড়ি সেটা বলা সম্ভব নয়। গত মঙ্গলবার উভয় প্রতিদ্ব’ন্দ্বীর মধ্যে প্রথম টেলিভিশন বি’ত’র্ক অনুষ্ঠিত হয়। এ উপলক্ষে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প টিটকারী করে বলেছিলেন, বাইডেন সম্ভবত ২শ’ ফুট দূর থেকে কথা বলবেন। আর মুখে পরে থাকবেন আমার এ যাবত দেখা সবচেয়ে বড়ো মাস্ক।

যুক্তরাষ্ট্রে করোনা শুরুর প্রথম মাসগুলোতে বাইডেন দেলওয়ারে তার বাড়িতেই আইসোলেশানে ছিলেন। ওই সময়ে ট্রাম্প জো বাইডেনকে ‘স্লিপি জো’ বলে তির’স্কার শুরু করেন। তিনি আরও বলেন, বাইডেন তার বেসমেন্টেই লু’কিয়ে আছেন। কিন্তু শুক্রবার করোনা পজি’টিভ ধ’রা পড়ার পর ট্রাম্প প্রথমে নিজ বাসস্থানে পরে এখন হাসপাতালে আ’ইসোলে’শানে থাকতে বা’ধ্য হচ্ছেন।

এদিকে বাইডেন ঘোষণা দিয়েছেন তার করোনা নেগে’টিভ এবং তিনি প্রচা’রণার উদ্দে’শ্যে মিশিগান রয়েছেন। গ্রান্ড র‌্যাপিডস এ পৌঁছার পর এক বক্তব্যে বাইডেন বলেন, এটি কোন রাজনীতির বিষয় নয়। আমাদের ভাই’রাসটিকে গুরুত্বের সঙ্গে নিতে হবে। এটি নিজে নিজেই দূর হবে না।

উল্লেখ্য, ট্রাম্প বারবারই বলেছেন, করোনা ভাই’রাস এমনিতেই চলে যাবে। এছাড়া বাইডেন জনগণের প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, মাস্ক পরুন, হাত ধোন এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন। বাইডেন কখনই তার প্রতিদ্ব’ন্দ্বীর সরাসরি স’মালো’চনা করেননি। বরং তার প্রতি উষ্ণ শুভেচ্ছা জানিয়েই তার বক্তব্য শেষ করেন।

এদিকে তার প্রচারণা দল বলছে, শুক্রবার ট্রাম্পের বি’রু’দ্ধে প্রচারের জন্য থাকা সকল নে’তিবাচক বক্তব্য তারা স’রিয়ে নিয়েছে। ট্রাম্পের শরীরে করোনা ভাইরাস শ’না’ক্ত হওয়ার পর এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এদিকে ট্রাম্প ও বাইডেনের মধ্যে পরবর্তী বি’ত’র্ক ১৫ অক্টোবর অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। কিন্তু এটি আদৌ অনুষ্ঠিত হবে কিনা তা এখনও স্পষ্ট নয়।