একে একে আরও ৮ অঞ্চল দখলমুক্ত করে পতাকা উড়ালো আজারবাইজান

আর্মেনিয়ার দখল থেকে আরও ৮ অঞ্চল মুক্ত করে পতাকা উড়িয়েছে আজারবাইজানের সেনাবাহিনী। বুধবার আজেরি প্রেসিডেন্ট ইলহাম আলিয়েভ এক ঘোষণায় এ কথা জানান। এক টুইট বার্তায় তিনি কথা জানিয়েছেন।

এক টুইট বার্তায় আজেরি প্রেসিডেন্ট বলেন, আজারবাইজানের গর্বিত সেনাবাহিনী ফুজুলি জেলার গারাকলু, গারাদাগলি, খাতুনবুলাগ গ্রাম এবং খাজাভেন্দ জেলার তাগাসের, বুলুতান, মেলিকজানলি, কেমারতুক ও টেকে গ্রাম মুক্ত করেছে। দীর্ঘজীবী হউক আজারবাইজানের সেনাবাহিনী। কারাবাখ আজারবাইজানের।

তুর্কি সংবাদমাধ্যম ইয়েনি শাফাকের প্রতিবেদনে বলা হয়, এর আগে আজারবাইজানের সেনাবাহিনী অভিযান পরিচালনা করে দখলকৃত সেবরাইল, হাদরুতসহ ৩০টির বেশি গ্রাম মুক্ত করেছে। আজারবাইজানের প্রসিকিউটর মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, ২৭ সেপ্টম্বর থেকে যুদ্ধে আর্মেনিয়ার হামলায় ৪২ জন বেসামরিক লোক নিহত আর ২০৬ জন আহত হয়েছেন।

২৭ সেপ্টেম্বর থেকে বিরোধীয় নাগোরনো-কারাবাখ নিয়ে আর্মেনিয়া ও আজারবাইজান নতুন করে যুদ্ধে জড়ায়। পরবর্তীতে ১০ অক্টোবর রাশিয়ার মধ্যস্থতায় আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের মধ্যে ম্যারথন আলোচনা হয়। এতে উভয় পক্ষ মানবিক কারণে সাময়িক যুদ্ধবিরতিতে সম্মত হয়। এ যুদ্ধবিরতিতে দুই দেশের মধ্যে যুদ্ধবন্দিসহ অন্যান্য বন্দি বিনিময় ও মৃতদেহ হস্তান্তরের বিষয়ে উভয় দেশ সম্মত হয়।